প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] মৌলভীবাজারে জেলা সদরে ডাকাতি রোধে পুলিশ-জনতা যৌথ পাহারা শুরু

স্বপন দেব : [২] বৃহস্পতিবার গভীর রাতে মৌলভীবাজার জেলা সদরের বিভিন্ন এলাকায় পুলিশ সুপার ফারুক আহমদ স্থানীয় কিছু সাংবাদিকদের নিয়ে এই কার্যক্রম তাদরকি করেন। সেসময়ে পাহারায় থাকা পুলিশ সদস্য ও সাধারণ জনগনকে পুলিশ সুপার উৎসাহ দেন।

[৩] এই কার্যক্রম তদারকিতে অংশ নেন জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) আরিফুল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) আবু নাসের মোহাম্মদ রিকাবদার, সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জিয়াউর রহমান, সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইয়াছিনুল হক।

[৪] চাঁদনীঘাট ইউনিয়নের ছড়াপার এলাকার লিটন মিয়া জানান, তারা প্রতিদিনই পুলিশের সাথে পাহারা দেন। তবে পুলিশ ছাড়াও তারা পাহারা দেন। কোন সমস্যা হলে মোবাইল ফোনে পুলিশের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করেন। তাদের এলাকায় অপরিচিত কাউকে দেখলে তার সার্বিক তথ্য জানতে চান। সন্দেহ হলে টহল পুলিশকে খবর দেন।

[৫] সদর উপজেলার বিভিন্ন এলাকার গুরুত্বপূর্ণ রাস্তার মোড়ে মোড়ে ডাকাতি প্রতিরোধে পুলিশ-জনতা মিলে পাহারা দেয়ায় এলাকাবাসী নিজেদের অনেকটা নিরাপদ মনে করছেন। তবে সাধারণ মানুষের বক্তব্য শুধু প্রচারের মধ্যে এধরণের কার্যক্রমকে সীমাবদ্ধ না রেখে প্রতিদিনই যাতে একাজের সঠিক তদারকি হয় তা নিশ্চিত করা প্রয়োজন।

[৬] এছাড়া শীতের শুরুতেই পর্যটন এলাকা শ্রীমঙ্গলে ইতিমধ্যেই ডাকাতির ঘটনা ঘটতে শুরু করেছে। আর চুরি ডাকাতি প্রতিরোধে জেলার সদর উপজেলা ছাড়া অন্যান্য উপজেলা গুলোতে পুলিশের উর্দ্বতন কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধি, যুবশক্তিকে যুক্ত করে কার্যকর উদ্যোগ না নিলে করোনাকালিন অর্থনৈতিক দূরাবস্থায় চুরি ডাকাতি বেড়ে যেতে পারে বলে সচেতন মহল মনে করেন।

[৭] এছাড়া রাত ৭টার পর থেকে মহা সড়কসহ আঞ্চলিক সড়কগুলোতে পুলিশী টহল কার্যকর জোরদার করা জরুরি বলে মনে করেন আতঙ্কিত এলাকাবাসী । সম্পাদনা: জেরিন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত