প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] তৃতীয় ভ্যাকসিন হিসেবে যুক্তরাজ্যে ট্রায়াল শুরু হচ্ছে জেনসেনের

আসিফুজ্জামান পৃথিল: [২] বেলজিয়ান কোম্পানিটির এই ভ্যাকসিনকে মনে করা হচ্ছে করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে অন্যতম সম্ভাবনাময় প্রতিষেধক। এর আগে দুটি ভ্যাকসিনের ৩য় ধাপের ট্রায়াল হয়েছিলো যুক্তরাজ্যে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, করোনা অতিমহামারী মোকাবেলায় কয়েক ধরণের ভ্যাকসিন প্রয়োজন হতে পারে। বিবিসি

[৩] ফিজার ও বায়োএনটেকের ভ্যাকসিনটি বিশ্বজুড়ে উদ্দীপনা তৈরি করলেও তা এখনও অনুমোদিত হয়নি। এছাড়াও ভ্যাকসিনটিকে শূণ্যের চেয়েও ৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে তাপমাত্রায় সংরক্ষণ করতে হয়। যা বিশ্বের অনেক দেশ ও অঞ্চলে সম্ভব নয়। তাই বিকল্প ভ্যাকসিনের জন্যও চলছে অনুসন্ধান। দ্য গার্ডিয়ান

[৪] যুক্তরাজ্যে মোট ৬ হাজার স্বেচ্ছাসেবকে এই ভ্যাকসিন দেয়া হবে। সব মিলিয়ে সারা বিশ্বে ৩০ হাজার স্বেচ্ছাসেবীর উপর এই পরীক্ষা চালানো হবে। অর্ধেক ভলেন্টিয়ারকে দুই মাসের ব্যবধানে দুই ডোজ করে ভ্যাকসিন দেয়া হবে।

[৫] জেনসেন ভ্যাকসিন অবশ্য ফাইজারের তথ্যই ব্যবহার করা হয়েছে। কারণ দুটি ভ্যাক্সনই স্পাইক প্রোটিনকে ধ্বংসের কাজ করে থাকে। অবশ্য কিছু বিশেষজ্ঞদের মতে, কোম্পানি ও গবেষকদের উচিৎ আরএনএ ভ্যাকসিন নিয়ে কাজ করা। বিশ্বে বর্তমানে একটিমাত্র আরএনএ ভ্যাকসিন নিয়ে গবেষণা হচ্ছে। তা হলো বাংলাদেশি কোম্পানি গ্লোববায়োটেকের ব্যানকোভিড ভ্যাকসিন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত