প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] সিরাজগঞ্জের বেলকুচি উল্লাপাড়া সংযোগ সড়কের বেহালদশা, জনগণের দুর্ভোগ

রেজাউল করিম: [২] সিরাজগঞ্জের বেলকুচির মুকুন্দগাঁতী থেকে কান্দাপাড়া হয়ে উল্লাপাড়ার সংযোগ সড়কের বেহাল দশা। খানাখন্দে ভরা ছোট-বড় অসংখ্য গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। এতে চলাচল করতে গিয়ে প্রতিনিয়িত পথচারী ও যাত্রীরা ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন। এদিকে সামনে হিন্দু সম্প্রদায়দের বড় উৎসব দূর্গাপূজা উপলক্ষে তাদের চলাচল বেড়ে যাবে। এতে প্রতিমা দেখা খুব কষ্টকর হবে।

[৩] সরজমিনে গিয়ে দেখাযায় মামুদপুর, কামারপাড়া, কান্দাপাড়া মবুপুরের বিভিন্ন অংশে কান্দাপাড়া বাজার থেকে উল্লাপাড়া (১৮) কিলোমিটার। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি খারাপ অবস্থা কান্দাপাড়া বাজার থেকে উল্লাপাড়া পর্যন্ত।

[৪] স্থানীয়রা জানান, বেলকুচির মুকুন্দগাঁতী থেকে কান্দাপাড়া উল্লাপাড়ার সংযোগ সড়কের বিভিন্ন অংশে খানা খন্দে ভরে গেছে। প্রতিদিন শত শত যানবাহন চলাচল করে এই রাস্তায়। যানবাহন চলাচলের জন্য সড়কের বিভিন্ন স্থানে গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। এমনকি সড়কের পিচ, সুরকি, ইট উঠে গিয়ে বড় গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। বৃষ্টি হলেই ওইসব গর্তে পানি আটকে থাকে। এতে যানবাহন দুর্ঘটনায় কবলিত হয় অনবরত। বিশেষ করে স্কুল ও কলেজের শিক্ষার্থী প্রতিদিন যাতায়াত করে। এ রাস্তা দিয়ে তাদের চলাচল করতে দুর্ভোগ পোহাতে হয়।

[৫] পথচারী শাহীন রেজা ও জাকারিয়া জানান, এই সড়ক দিয়ে সর্বসাধারণের চলাচল অযোগ্য হয়ে পড়েছে। একটি গুরুত্বপূর্ণ সড়কের প্রতি কর্তৃপক্ষের উদাসীনতায় ভোগান্তিতে পড়েছেন স্থানীয়রা। সোহাগপুর শ্যাম কিশোর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ে ছাত্র ফাহিম হোসেন জানান, রাস্তার বেহাল দশায় কারনে চলাচল করতে আমাদের খুবই অসুবিধা হয়। আরেক পথচারী জানান, রাস্তায় গর্তে পানি থাকায় মোটরসাইকেল চালাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে। জরুরি ভিত্তিতে রাস্তার সংস্কার করা প্রয়োজন। গাড়ী চালাতে চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

[৬] অটো ভ্যানচালক রুবেল হোসেন জানান, রাস্তায় গর্তের কারণে ঠিকমতো গাড়ি চালাতে পারি না। এতো খারাপ হওয়ার পরেও রাস্তা সংস্কার হচ্ছে না। সিএনজিচালক কুরবান আলী জানান, রাস্তায় ছোট-বড় গর্তের কারনে যাত্রীরা আরামে গাড়িতে বসতে পারে না। তারপরও ঝুঁকি নিয়েই গাড়ি চালাতে হয়।

[৭] সিএনজি চালক ছাইদুল ইসলাম জানান,আমরা স্বউদ্যােগে কিছু মাটি রাস্তায় ফেলেছিলাম কিন্তু এতেও কোন লাভ হয়নি,চলাচলে তবুও ভোগান্তি।

[৮] এ ব্যাপারে বেলকুচি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম সাজেদুল জানান, সামনে হিন্দু সম্প্রদায়ের বড় উৎসব দূর্গাপুজা এ রাস্তা দিয়ে প্রচুর যানবাহন চলাচল করে,এটা মাথায় রেখে উল্লাপাড়া সংযোগ সড়কের সংস্কারের বিষয়ে জেলা সড়ক ও জনপদ বিভাগের প্রকৌশলীকে জানিয়েছি অচিরেই কাজ হওয়ার কথা।

[৯] সিরাজগঞ্জ জেলা নির্বাহী প্রকৌশলী (সওজ) আশরাফুল ইসলাম জানান, আমাদের মালামাল বহনকৃত ট্রাকটি বিকল হওয়ায় কাজ করা পিছিয়ে যায়, তবে খুব দ্রুতই কাজ শুরু করা হবে। সম্পাদনা: সাদেক আলী

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত