প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] মির্জাপুরে দুটি কন্টেইনারে ভারতীয় শাড়ি-কাপড় জব্দ, গ্রেপ্তার ৪

মাজহারুল শিপলু: [২] সরকারকে ট্রাক্স না দিয়ে অবৈধভাবে ১৮ হাজার ৩৩ পিস ভারতীয় শাড়ি কাপড় আটক করেছে মির্জাপুর থানা পুলিশ। আটককৃত শাড়ির বর্তমান বাজার মূল্য প্রায় ৩ কোটি টাকার উপরে বলে জানা গেছে।

[৩] বুধবার (১৪ অক্টোবর) রাতে ভারতীয় শাড়ি কাপড় আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সহকারি পুলিশ সুপার (মির্জাপুর সার্কেল) দীপংকর ঘোষ।

[৪] তিনি বলেন, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের গোড়াই ইউনিয়নের দেওহাটা এলাকা থেকে ভারতীয় শাড়ি কাপড় ভর্তি দুটি কন্টিনার ও ৪ জনকে আটক করা হয়।

[৫] পুলিশ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কের দেওহাটা অংশ থেকে ভারতীয় কাপড়সহ কন্টিনার দুটি আটক করা হয়। তবে পুলিশের চোখ ফাঁকি দিতে কন্টিনার দুটির পিছনের অংশে একসারি করে গমের বস্তা রাখা হয়। এছাড়া গাড়ি চালক পুলিশকে গমের চালান কপিও দেখান। কিন্তু কন্টিনার তল্লাশি করে পাওয়া যায় বিপুল পরিমাণ ভারতীয় শাড়ি। যা ট্রাক্স ফাঁকি দিয়ে অবৈধভাবে এই বিপুল পরিমাণ শাড়ি কাপড় সাতক্ষীরা থেকে ঢাকার ইসলামপুরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল।

[৬] আটককৃতরা হলেন- সাতক্ষীরা জেলার কলরোয়া উপজেলার দক্ষিণ দিগনা গ্রামের জালাল উদ্দিনের ছেলে ট্রাক চালক নাজমুল হোসেন (৩০), সাতক্ষীরা সদর থানার জামাননগর গ্রামের আব্দুল মহসিনের ছেলে ট্রাক ড্রাইভার আকতারুল ইসলাম, একই উপজেলার এরফান আলী গাজীর ছেলে ট্রাকের হেলপার মশিউর (৪০), দিদার উদ্দিনের ছেলে নাসির উদ্দিন (৩০)।

[৭] মির্জাপুর থানা অফিসার ইনচার্জ মো. সায়েদুর রহমান জানান, আটককৃতদের বিরুদ্ধে ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। মূলহোতা বের করার চেষ্টা চলছে। আটককৃত শাড়ি-কাপড়ের ব্যাপারে কোর্ট ব্যবসা গ্রহণ করবে। সম্পাদনা: হ্যাপি

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত