প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] নাগরোনো কারাবাখ যুদ্ধে ব্যাপক হতাহতের কথা স্বীকার করলেন আর্মেনিয় প্রধানমন্ত্রী

আসিফুজ্জামান পৃথিল: [২] নিকল ফাসিনিয়ান জানিয়েছেন, আজারবাইজানের বাহিনীর হাতে তাদের সেনাবাহিনী বিপুল ক্ষয়ক্ষতির শিকার হয়েছে। তবে তিনি দাবি করেন, এখনও আর্মেনিয়ান বাহিনীর হাতেই নিয়ন্ত্রণ রয়েছে। এদিকে তুরস্ক ও রাশিয়া দুই পক্ষকেই যুদ্ধ বন্ধের আহ্বান জানিয়েছে। বিবিসি

[৩] নগরোনো-কারাবাখ অঞ্চলের মালিকানা আজারবাইজানের এটি আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত। তবে এর নিয়ন্ত্রণ রয়েছে আর্মেনিয় গোষ্ঠীগুলোর হাতে। এই ছিটমহলে ২৭ সেপ্টেম্বর যুদ্ধে লিপ্ত হয় আর্মেনিয়া ও আজারবাইজান। দুই পক্ষেই কয়েকশ করে হতাহতের ঘটনা ঘটেছে। রয়টার্স

[৪] রাশিয়ার মধ্যস্থতায় গত সপ্তাহেই যুদ্ধবিরতীতে রাজি হয় দুই পক্স। তবে ২৪ ঘণ্টা পার গবার আগেই একে অপরের বিরুদ্ধে যুদ্ধবিরতী ভাঙার অভিযোগ আনে। দুইপক্ষের মধ্যে এখনও সংঘাত চলছে। তবে এর তীব্রতা বেশ কমে এসেছে। ফ্রান্স ২৪

[৫] জাতির উদ্দেম্যে দেয়া ভাষণে নিকোল বলেন, ‘আমরা সকল হতাহতের প্রতি মাথানত করছি। তারা শহীদ। তাদের পরিবার, বিশেষত তাদের বীরপ্রসবা মায়েদের প্রতি আমি নতজানু হতে চাই। আমি কাউকে হতাশ করার জন্য এই তথ্য দিচ্ছিনা। আমি আমার জনগনকে সত্য জানাতে চাই। আমরা অবশ্যই জিতবো, আমরা অবশ্যই বাঁচবো, আমরা অবশ্যই ইতিহাস তৈরি করবো। আমরা আমাদের ইতিহাস, নতুন বীরগাঁথা, নতুন মহাকাব্য লিখা শুরু করে দিয়েছি।’ বিবিসি

সর্বাধিক পঠিত