প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] টেকনাফে গোলাগুলির পর পৌনে ৭ কোটি টাকার ইয়াবা উদ্ধার

ফরহাদ আমিন: [২]কক্সবাজারের টেকনাফে নাফ নদীর তীরে বিজিবি ও মাদক ব্যবসায়ীদের মধ্যে গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় পাচারকারীরা পালিয়ে গেলেও ২লাখ২৬হাজার ইয়াবা উদ্ধার করেছে বিজিবি।

[৩]শনিবার রাতে হ্নীলা ইউপি দমদমিয়া ন্যাচারপার্ক বরাবর নাফনদী তীর এলাকা থেকে ইয়াবাগুলো উদ্ধার করা হয়।

[৪]রোববার সকালে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন টেকনাফ ২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান (পিএসসি)।

[৫] তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানা যায় মিয়ানমার থেকে ইয়াবার একটি বড় চালান নাফনদী দিয়ে দমদমিয়া ন্যাচারপার্ক বরাবর এলাকায় প্রবেশ করবে। এমন তথ্যে উক্ত এলাকায় দমদমিয়া বিওপির একটি বিশেষ টহল দল অভিযানে যায়। কিছুক্ষণ পর দমদমিয়া বিএসপি হতে আনুমানিক ২০০মিটার উত্তরে ন্যাচারপার্ক বরাবর ৪-৫জন ব্যক্তিকে দুইটি নৌকা নিয়ে মিয়ানমার হতে শূন্য রেখা অতিক্রম করে বাংলাদেশে প্রবেশ করতে দেখে টহলদল চ্যালেঞ্জ করে। পাচারকারীরা দূর থেকে টহলদলকে লক্ষ্য করে কয়েক রাউন্ড গুলিবর্ষণ করে। এ সময় সরকারি সম্পদ এবং নিজের জান-মাল রক্ষার্থে পাল্টা গুলি করে টহলদল।ইয়াবা ব্যবসায়ীরা ভীত হয়ে সামনের নৌকায় থাকা পাচারকারীরা নদীতে ঝাঁপিয়ে পড়ে এবং পিছনে থাকা ইঞ্জিন চালিত নৌকায় স্থানান্তরিত হয়ে দ্রুত মিয়ানমারের অভ্যন্তরে চলে যায়।পরে পাচারকারী পেলে যাওয়া নৌকাটি তল্লাশি চালিয়ে তিনটি প্লাস্টিকের বস্তা উদ্ধার করা হয়।বস্তাগুলো খুলে গণনা করে ৬কোটি ৭৮লাখ টাকা মূল্যমানের ২ লাখ ২৬ হাজার ইয়াবা পাওয়া যায়। এ সময় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি।

[৬] তিনি আরো জানান, উদ্ধার ইয়াবাগুলো পরবর্তীতে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের প্রতিনিধি ও মিডিয়া কর্মীদের উপস্থিতিতে ধ্বংস করার জন্য ব্যাটালিয়ন সদরে জমা রাখা হয়েছে। সম্পাদনা: হ্যাপি

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত