প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আতিক খান: আচ্ছা, বাংলাদেশে এইচএসসি পর্যন্ত কিছু শেখানো হয় না?

আতিক খান : এইচএসসি পরীক্ষা বাতিলের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে রিট করেছে এক ছাত্রী। মেয়েটার পরিচয় খুঁজে বের করে চৌদ্দগুষ্টি উদ্ধারে নেমেছে ওরই একদল সহপাঠী। অনলাইনে প্রচুর অশ্লীল গালাগালি করা হচ্ছে, যা লেখার অযোগ্য। খুব ভদ্র গোছের ২-৩ টা লিখি, মেয়েটাকে রেপ করা হোক৷ রেপিস্টদের হাতে তুলে দেওয়া হোক। মেয়েটার পায়ে, কারেন্ট বেশি হইছে, ওকে।

রিট করা একটা মেয়ের আইনগত অধিকার। সরকারের নেওয়া সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে এই রিট সফল হবার কোনো সম্ভাবনা নেই। তবুও মেয়েটাকে এভাবে টেনে এনে সম্মানহানির চেষ্টা খুবই অরুচিকর আর অগ্রহণযোগ্য। এই মন্তব্যগুলো নিয়েও অনায়াসে সাইবার ক্রাইমের মামলা করা যায়।
এই গালাগালি করা ছেলেগুলোও এইচএসসি পরীক্ষার্থী। আচ্ছা, বাংলাদেশে এইচএসসি পর্যন্ত কিছু শেখানো হয় না? নম্রতা, ভদ্রতা, বাদ দিলাম। অন্তত চক্ষুলজ্জা বলেও তো একটা বিষয় আছে যে, অন্যরা দেখছে আমি কী লিখছি। অনলাইন গালাগালিতে এক একজন পিএইচডি। বিশ্বসেরা পাবলিক ভার্সিটিগুলোতে যদি সোশ্যাল মিডিয়ায় অশ্রাব্য গালাগালি, অশালীন আচরণ আর নারীর প্রতি অসম্মান নামে বিভাগ খোলা হয়, বাঙালি ছাত্ররা তাতে ক্লাস টপার হবে। কী তৈরি হচ্ছে এগুলো, পটেনশিয়াল রেপিস্ট একেকজন, শুধু সুযোগ এর অপেক্ষায় আছে। এদের মা-বাবারা কী শিখিয়েছে এদের ১৮ বছর ধরে! ফেসবুক থেকে

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত