প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সেপ্টেম্বরে রেমিট্যান্সের প্রবৃদ্ধি ৪৯ শতাংশ

ডেস্ক রিপোর্ট: প্রবাসী আয় বা রেমিট্যান্সের উচ্চ প্রবৃদ্ধি অব্যাহত আছে। সেপ্টেম্বরে প্রবাসীরা ২১৫ কোটি ১০ লাখ ডলার দেশে পাঠিয়েছেন। বাংলাদেশী মুদ্রায় এ অর্থের পরিমাণ ১৮ হাজার ২৮৩ কোটি টাকার বেশি। সেপ্টেম্বরেও দেশের রেমিট্যান্সে প্রবৃদ্ধি হয়েছে ৪৮ কোটি ৫৭ লাখ ডলার। এ নিয়ে চলতি অর্থবছরের প্রথম তিন মাসেই (জুলাই-সেপ্টেম্বর) রেমিট্যান্সে উচ্চ প্রবৃদ্ধির ধারা অব্যাহত থাকল।বণিকবার্তা

২০২০-২১ অর্থবছরের প্রথম মাস জুলাইয়ে রেকর্ড ২৫৯ কোটি ৮২ লাখ ডলার রেমিট্যান্স দেশে পাঠান প্রবাসীরা। এরপর আগস্টেও ১৯৬ কোটি ৩৯ লাখ ডলার রেমিট্যান্স দেশে আসে। এবার সেপ্টেম্বরে আবারো রেমিট্যান্স ছাড়াল ২ বিলিয়ন ডলারের গণ্ডি। সবমিলিয়ে চলতি অর্থবছরের প্রথম তিন মাসে প্রবাসীরা ৬৭১ কোটি ৩১ লাখ ডলার দেশে পাঠিয়েছেন। ২০১৯-২০ অর্থবছরের প্রথম তিন মাসে দেশে রেমিট্যান্স এসেছিল ৪৫১ কোটি ৯৩ লাখ ডলার। এ হিসাবে চলতি অর্থবছরে এখন পর্যন্ত রেমিট্যান্সের প্রবৃদ্ধি ৪৮ দশমিক ৫৪ শতাংশ।

করোনাভাইরাস সৃষ্ট দুর্যোগে এখন পর্যন্ত স্বাভাবিক অবস্থা ফেরেনি আমদানি বাণিজ্যে। রেমিট্যান্সের বড় প্রবৃদ্ধির পাশাপাশি রফতানি খাত ঘুরে দাঁড়ানোয় বাজারে চাহিদার চেয়ে বেশি ডলার জমা হয়েছে। বৈদেশিক মুদ্রাবাজার স্থিতিশীল রাখতে কয়েক বছর ধরে ডলার বিক্রি করলেও গত কয়েক মাসে ব্যাংকগুলো থেকে প্রতিনিয়তই ডলার কিনছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। প্রত্যাশার চেয়েও বেশি ডলার আসায় সরকারের চলতি হিসাবের ভারসাম্যেও উদ্বৃত্তের ধারা ফিরে এসেছে। আগস্ট শেষে চলতি হিসাবের ভারসাম্যে উদ্বৃত্ত অর্থের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৩২৯ কোটি ৬০ লাখ ডলার। সবমিলিয়ে রেমিট্যান্সের রেকর্ড প্রবৃদ্ধিতে উচ্ছ্বাসিত বাংলাদেশ ব্যাংক ও অর্থ মন্ত্রণালয়।

রেমিট্যান্সে উল্লম্ফনের পাশাপাশি দেশের রফতানি খাত ঘুরে দাঁড়ানোকে অর্থনীতির জন্য বড় আশীর্বাদ বলে মনে করেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মো. সিরাজুল ইসলাম। বণিক বার্তাকে তিনি বলেন, জুন থেকে দেশের রেমিট্যান্সপ্রবাহ প্রবৃদ্ধির ধারায় ফিরেছে। প্রবাসীরা দেশে আগের চেয়ে অনেক বেশি অর্থ দেশে পাঠাচ্ছেন। দেশের রফতানি খাতও করোনাসৃষ্ট বিপর্যয় কাটিয়ে ঘুরে দাঁড়িয়েছে। বৈদেশিক মুদ্রা আয়ের শীর্ষ দুটি খাতের প্রবৃদ্ধি অর্থনীতির জন্য আশীর্বাদ। পাশাপাশি বিশ্বব্যাংক, আইএমএফ, এডিবিসহ দাতা সংস্থাগুলোর ঋণসহায়তা বাড়ছে। গত কয়েক মাসে দেশের বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভে নতুন করে ৬ বিলিয়ন ডলার যুক্ত হয়েছে। আমাদের রিজার্ভ যে অনন্য উচ্চতায় পৌঁছেছে তা অনন্য।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত