প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ধর্ষণের প্রতিবাদে সরব সোশ্যাল মিডিয়া, ধর্ষকদের সর্বোচ্চ শাস্তি না হওয়া পর্যন্ত প্রতিবাদ চলবে

ভূঁইয়া আশিক : [২] সাম্প্রতিক ঘটে যাওয়া কয়েকটি ধর্ষণ ও যৌননিপীড়ন নিয়ে ফুঁসে উঠেছে সোশ্যাল মিডিয়া।  প্রধানমন্ত্রীর উপ-প্রেসসচিব আশরাফুল আলম খোকন তার ফেসবুক পোস্টে লেখেন, ঢাবির একজন ছাত্রী কতো অসহায়, এর জ্বলন্ত উদাহরণ ফাতেমা! ধর্ষিত হয়ে বিচার চেয়ে মানুষের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন। আইনের আশ্রয়ও নিয়েছেন। কিন্তু কিছু সুশীল, কিছু সুশীল মিডিয়া ধর্ষণকারী ও তার সহযোগীদের নির্দোষ প্রমাণে ব্যস্ত। এক্সক্লুসিভ সাক্ষাৎকার নিয়ে নির্দোষ প্রমাণের আপ্রাণ চেষ্টা করে যাচ্ছেন তারা।

[৩] এটিএন নিউজের বার্তাপ্রধান প্রভাষ আমিন এমসি কলেজের ধর্ষণ নিয়ে লেখেন, যে কক্ষে ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে, সেটি ছাত্রলীগের দখলে থাকা। ধর্ষক হিসেবে যাদের নাম এসেছে, তারাও ছাত্রলীগের। আমি বিশ্বাস করি, পুলিশ চাইলে সবই পারে। অবিলম্বে এই ঘটনায় দায়ী প্রত্যেককে গ্রেপ্তার করা হোক। [৪] সালাহ্ উদ্দীন পল্লব সিলেটের এমসি কলেজ ধর্ষণ ঘটনাকে ইংগিত করে লেখেন, আরেহ না! ওরা মোটেও ছাত্রলীগের ছিলো না। ঘটনা ঘটার ঠিক এক ঘণ্টা আগেই তাদের বহিষ্কার করা হয়েছিলো…!

[৫] সুদীপ্ত বিশ্বাস বিভু নামের একজন লেখেন, ৯ জন বাঙালি বীর পুরুষ মিলে একটা প্রতিবন্ধী মেয়েকে ধর্ষণ করেছে। এমসি কলেজে ঘুরতে গিয়ে ছাত্রলীগের হাতে গণধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক তরুণী। এই ছাত্রলীগই শিবির বিতাড়নের নামে রবীন্দ্রনাথের স্মৃতিধন্য শতবর্ষী এমসি কলেজের ছাত্রাবাস পুড়িয়ে ছাড়খার করে দিয়েছিলো।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত