প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে দেশের সবগুলো নদী খনন করে বাঁধ নির্মাণ করা হবে: পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

লালমনিরহাট প্রতিনিধিঃ [২] পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক বলেছেন, কোথাও ভাঙণের খবর পেলেই ছুটে আসি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি আস্থা রাখুন। ড্রেজিং করে নদী ছোট করে কৃষি জমি বাড়ানো হবে। এতে অনেক টাকা দরকার। এজন্য বিদেশি ডোনারদের সঙ্গে কথা বলেছি। এতে অনেক দেশ আগ্রহ দেখিয়েছেন।

[৩] শনিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) দুপুরে লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলার মহিষখোচা ইউনিয়নে তিস্তা নদীর ভাঙন কবলিত এলাকা পরিদর্শন কালে তিনি এ কথা বলেন।

[৪] পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, উজানে বৃষ্টি হলে তা নেমে এসে আমাদের দেশে বন্যার সৃষ্টি হয়। নদী ভাঙনের ফলে পানির সাথে পলি নেমে আসে। দেশে বছরে এক বিলিয়ন পলি জমে। প্রতি বছর নদী ভরাট হয়ে চর জেগে উঠছে এবং নদীও গতিপথ পরিবর্তন করছে। প্রতি বছর ভাঙন রোধে বাঁধ দেয়া হচ্ছে। পানি উন্নয়ন বোর্ডের কাজ ভালো করতে গতিটা কিছু ধিরে হয়। বড় প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে কিছু সময় লাগবে। এ জন্য তিস্তাপাড়ের মানুষকে ধৈর্যধারন করতে আহবান জানান তিনি।

[৫] এ সময় উপস্থিত ছিলেন পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মাহমুদুল ইসলাম, পানি উন্নয়ন বোর্ডের মহা-পরিচালক এ এম আমিনুল হক, পানি উন্নয়ন বোর্ড উত্তরাঞ্চলের প্রধান প্রকৌশলী জ্যোতি প্রসাদ ঘোষ, লালমনিরহাট জেলা প্রশাসক আবু জাফর, আদিতমারী ইউএনও মনসুর উদ্দিনসহ প্রমুখ।

[৬] পথ সভা শেষে নৌকা যোগে তিস্তার নদী ভাঙন এলাকাগুলো ঘুরে ঘুরে দেখেন প্রতিমন্ত্রী। এ সময় নদীর বাম তীরে ক্ষতিগ্রস্থ হাজারো মানুষ ব্যানার ফেষ্টুন নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করে । নৌকা থেকে নেমে এসব মানুষকে বাঁধ নির্মানের আশ্বাস দেন পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী। সেখান থেকে বৃহত্তম সেচ প্রকল্প তিস্তা ব্যারাজের উদ্দেশ্যে রহনা দেন। সম্পাদনা: জেরিন আহমেদ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত