প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] মানুষ স্বল্প সময়ে ন্যায় বিচার পেলে জাতির পিতার স্বপ্ন বাস্তবায়ন হবে : প্রধান বিচারপতি

নূর মোহাম্মদ : [২] শনিবার বঙ্গবন্ধুর ৪৫তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন বলেছেন, বাংলাদেশের বিচার বিভাগ জাতির জনকের আদর্শকে ধারণ করে আইনের শাসন এবং সকলের জন্য ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠায় নিরন্তর কাজ করে যাচ্ছে এবং যাবে।

[৩] প্রধান বিচারপতি বলেন, বঙ্গবন্ধু এমন এক মহান ব্যক্তিত্ব, যাকে কোনো বিশেষণে বিশেষায়িত করা যাবে না। এই মহান নেতা আমাদের জাতীয় জীবনে এক আলোকবর্তিকা। তিনি অন্যায়ের কাছে মাথানত করেননি বলে তার জীবনের অনেকটা সময় কারাগারে কেটেছে। আদর্শ এবং মূল্যবোধ থেকে তিনি এক পা পিছু হটেননি। গণতন্ত্র এবং আইনের শাসনকে সুসংহত করতে বঙ্গবন্ধু জীবনের শেষদিন পর্যন্ত প্রাণান্তকর চেষ্টা করেছেন।

[৪] প্রধান বিচারপতি আরও বলেন, বঙ্গবন্ধু বিচার বিভাগ পৃথকীকরণের কথা শুধু ১৯৭২ সালের সংবিধানেই বলেননি। ১৯৫৬ সালের ৬ ফেব্রুয়ারি পাকিস্তানের গণ পরিষদে আইন সভার সদস্য হিসেবে নির্বাহী বিভাগ থেকে বিচার বিভাগ পৃথকীকরণের জোর দাবি উত্থাপন করেন। সভায় অন্য বক্তারা বলেন, বঙ্গবন্ধুর আদর্শ এবং চেতনাকে লালন করে ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠায় সুপ্রিম কোর্টের উভয় বিভাগের বিচারপতিরা অঙ্গীকারবদ্ধ।

[৫] এর আগে সকাল ১০টায় সুপ্রিম কোর্টের জাজেস লাউঞ্জে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুস্পস্তবক অর্পণ করেন প্রধান বিচারপতি। শ্রদ্ধা নিবেদন করে দাড়িয়ে দুই মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট শহীদ হওয়া বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং তার পরিবারের সদস্যদের মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাতও করা হয়। মোনাজাত পরিচালনা করেন বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম। এছাড়া সুপ্রিম কোর্ট জামে মসজিদে পবিত্র কুরআন খানি ও দোয়া এবং দুঃস্থদের মধ্যে খাদ্য বিতরণ করা হয়।

[৬] এদিকে সুপ্রিম কোর্ট ছাড়াও সারাদেশের আদালত গুলোতেও পালিত হয়েছে জাতীয় শোক দিবস। এরই অংশ হিসেবে ঠাকুরগাঁও জেলা জজ আদালত এবং জেলা আইনজীবী সমিতি বিভিন্ন অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। ভার্চুয়াল মাধ্যমে আয়োজিত শোকসভায় সভাপতিত্ব করেন জেলা ও দায়রা জজ মামুনুর রশিদ।

[৭] জেলা জজের নেতৃত্বে বিচারক ও আইনজীবী সমিতির নেতারা তিনটি এতিমখানা এবং মঠ পরিদর্শন করে এতিম শিশুদের উন্নতমানের খাবার পরিবেশন করেন। এছাড়া বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের নিহত সদস্যদের রুহের মাগফেরাত কামনায় বিশেষ দোয়ার আয়োজনও করা হয়। যাতে জেলা জজ আদালতের বিচারক, আইনজীবী এবং কর্মকর্তা-কর্মচারীরা অংশ গ্রহণ করেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত