প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] ঈদ উৎসবে শপিংমলগুলো জমজমাট থাকলেও এবার ক্রেতা সংকটে

শরীফ শাওন : [২] প্রথম দিকে কম থাকলেও শেষ সপ্তাহে ক্রেতা বাড়ার আশায় ছিলেন বিক্রেতারা। তবে ঈদের আগের দিনে হতাশাই ছিল সম্বল।

[৩] শুক্রবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত রাজধানীর মিরপুর ১২, আসাদগেট ও বসুন্ধরার আড়ং শপিং সেন্টার, ইনফিনিটি, দেশি দশসহ মিরপুর ২ নম্বরের সকল শোরুম ও বসুন্ধরা সিটি শপিং সেন্টার ঘুরে দেখা যায়, ক্রেতার পথ চেয়ে রয়েছে দোকানিরা।

[৪] আড়ং এর এক বিক্রেতা বলেন, এবার ক্রেতা সংকট। তবে যেসকল ক্রেতা আসছেন, তারা কেনাকাটা করছেন। দেশি দশ এর বিক্রেতা বলেন, মহামারিতে স্বাস্থ্য ঝুঁকি এড়াতে অনেকেই আসছেন না, কিছু ক্রেতা অনলাইন কেনাকাটায় ঝুঁকছেন। চন্দ্রবিন্দু’র এক বিক্রেতা বলেন, মহামারিতে অনেকেই আর্থিক সংকটে পড়েছেন।

[৫] শো রুম উদ্যোক্তা শিবলি সাদিক বলেন, প্রতি বছর যে পরিমান পোশাক বিক্রি হয় তার প্রায় ৭০ শতাংশ হয় দুই ঈদ ও বৈশাখে। এবার মহামারির কারণে এই বেচাকেনা করতে পারিনি। বছরজুড়ে দোকান ভাড়া ও কর্মীদের খরচ নিয়ে লোকসান গুণতে হচ্ছে। সম্পাদনা : রায়হান রাজীব

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত