প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] এক রাতেই কালভার্টের সামনে টিনের বাড়ি নির্মাণ’ ২’শ একর ফসলি জমি পানির নিচে

সোহাগ গাজী: [২] দিনাজপুরে বৃষ্টির পানি নিষ্কাশিত হওয়ার কালভার্টের মুখে মাটি ভরাট করে একরাতেই টিনের বাড়ি তৈরী করায় চিরিরবন্দর উপজেলার প্রায় দুই’শ একর আবাদি জমি পানির নিচে তলিয়ে গেছে। এছাড়া ৫’শত পরিবার পানি বন্দি হয়ে চরম দূর্ভোগ জীবনযাপন করছে। এ ঘটনায় ওই এলাকার স্থানীয় কৃষকরা ওই বাড়ির মালিকের বিরুদ্ধে ২৬২ জনের স্বাক্ষরিত একটি লিখিত অভিযোগপত্র উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর দাখিল করেছে।

[৩] কালভার্টের মুখে পানি যাওয়ার রাস্তায় বাড়ি নির্মাণের ফলে অল্প বৃষ্টিতেই আবাদি জমি প্লাবিত হওয়ায় ওই এলাকার প্রায় ১ হাজার কৃষক বছরে এক বার শুধু বোরো ধান চাষ করে। ফলে জমি থাকা সত্তে¡ও অনেকে আমন ধান আবাদ করতে না পেরে কষ্টে জীবনযাপন করছে।

[৪] সরেজমিনে ঘুরে দেখা যায়, চিরিরবন্দর উপজেলার অমরপুর ইউনিয়নের জয়দেবপুর গ্রামের খামার পাড়ার বাসিন্দা আব্দুল হাকিমের পূত্র রবিউল আলম সরকার ও একই গ্রামের মৃত আব্দুস সাত্তারের পূত্র আজাহার আলী ও তার ছোট ভাই সোহেল রানা বাবু [৫] বৃষ্টির পানি নিষ্কাশিত হওয়ার একমাত্র কালভার্টের মুখটি মাটি ভরাট করে একরাতেই লোকজন লাগিয়ে টিনের বাড়ি তৈরী করে স্থায়ী স্থাপনা নির্মান করেছে। এতে ওই এলাকার বাসুদেবপুর, জয়দেবপুর, শ্যামনগর গ্রামের প্রায় দুই’শ একর ফসলি জমি পানির নিচে তলিয়ে গেছে” পানিবন্দি হয়েছে ১ হাজার মানুষ। এছাড়া ওই এলাকার অর্ধশতাধিক পুকুর প্লাবিত হয়ে মৎস্য ব্যবসায়ী ও চাষিরা ক্ষতিগ্রস্থ হয়ে পড়ছে।

[৬] এ ব্যাপারে চিরিরবন্দর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আয়েশা সিদ্দীকা বলেন, অভিযোগের পেক্ষিতে আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য এলাকাবাসীর সাথে আলোচনা করে খুব দ্রুত এর সমাধান করা হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত