প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] কক্সবাজার সৈকতে ভেসে আসছে প্লাস্টিক বর্জ্য

আমান উল্লাহ : [২] স্থানীয়রা বলছে প্রতিবছর বর্জ্য ভেসে আসলেও এত বর্জ্য তারা আগে দেখেনি। জেলা প্রশাসনের পর্যটন সেল সৈকতে ভেসে আসা বর্জ্য পরিষ্কার কাজ শুরু করেছে।

[৩] রোববার কক্সবাজার সৈকতের হিমছড়ি, দরিয়ানগর এলাকায় গিয়ে দেখা যায় শত শত টন প্লাস্টিক, দেশি বিদেশি মদের বোতল, বিভিন্ন ওষুধের বোতল, সুগন্ধি জাতীয় দ্রব্যের বোতল, ডাবের খোসায় সয়লব হয়ে গেছে প্রায় চার কিলোমিটার সমুদ্র সৈকত।

[৪] টিম কক্সবাজার এবং প্লাস্টিক ব্যাংক বাংলাদেশ নামে দুটি সংগঠনের কর্মীরা সৈকত পরিষ্কার করছেন। পর্যটন সেলের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইমরান জাহিদের নেতৃত্বে বিচ কর্মীরাও তাদের সঙ্গে কাজ করছেন।

[৫] টিম কক্সবাজারের সমন্বয়ক নাজমুল হক জানান, তিনি বলেন, আমরা যখন হিমছড়ি এলাকায় আসি তখন বেশ কিছু সামুদ্রিক কাছিম সৈকতে আটক অবস্থায় দেখি। আমরা দ্রুত জীবিত কাছিম উদ্ধার করে গভীর সাগরে দিয়ে আসি।

[৬] তনি জানান, বর্ষার সময় সামুদ্রিক কাছিমগুলো ডিম দিতে সৈকতে চলে আসে। হয়তো ডিম পেড়ে যাওয়ার সময় আটকে পড়ে যায় এসব কাছিম। দুদিনে আমরা ১৭ টি কাছিমকে সাগরে ফেরত পাঠিয়েছি। ৫টি কাছিমকে মৃত অবস্থায় পেয়েছি এবং ২টি অর্ধমৃত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে।

[৭] কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের পর্যটন সেলের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. ইমরান জাহিদ খান বলেন, অস্বাভাবিকভাবে প্লাস্টিক বর্জ্য ও মদের বোতল কিভাবে আসলো তা তদন্ত করার জন্য জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে একটি তদন্ত কমিটিও গঠন করা হয়েছে। সম্পাদনা : মুরাদ হাসান

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত