প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] সবচেয়ে বেশি ধূমপায়ী দেশ জর্ডান: জরিপ

ডেস্ক রিপোর্ট : [২] বিশ্বে সবচেয়ে বেশি ধূমপান হয় জর্ডানে। দেশটির প্রতি ১০ জন পুরুষের মধ্যে ৮ জনের বেশি পুরুষ নিয়মিত ধূমপান করেন বা ই-সিগারেটের মত নিকোটিনজাতীয় পণ্য গ্রহণ করেন। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সঙ্গে মিলে গত বছর করা এক জরিপে এ তথ্য উঠে এসেছে।

[৩] জরিপ অনুসারে, গড়পড়তায় জর্ডানের একজন ধূমপায়ী পুরুষ দিনে ২৩টি সিগারেট পান করেন। নতুন এ তথ্যের হিসাবে, বিশ্বের মধ্যে শীর্ষ ধূমপায়ী দেশ হয়ে উঠেছে জর্ডান। এর আগে এ স্থানে ছিল ইন্দোনেশিয়া। এ খবর দিয়েছে দ্য গার্ডিয়ান।

[৪] জরিপটি উদ্ধৃত করে খবরে বলা হয়, ই-সিগারেট ও অন্যান্য ধূয়াহীন পণ্য বাদ দিলেও ৬৬ শতাংশ জর্ডানিয়ান পুরুষ ও ১৭ শতাংশ নারী নিয়মিত ধূমপান করেন। এদিকে, জর্ডানের বিপরীত চিত্র দেখা গেছে যুক্তরাষ্ট্র, অস্ট্রেলিয়া ও কিছু ইউরোপীয় দেশে।

[৫] সেদেশগুলোয় গত তিন দশক ধরে দ্রুত কমছে ধূমপানের হার। ধারণা করা হচ্ছে, তামাকজাত পণ্যগুলোর উপর সরকারের কঠোর নিয়ন্ত্রণ ও সচেতনতা বৃদ্ধির জন্য এ হার কমেছে। শিল্প বিশ্লেষক ও জনস্বাস্থ্যকর্মীরা জানান, বড় বড় তামাকজাত প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রভাবের কারণে জর্ডানে ধূমপানের হার বেড়েছে। দেশটির সরকার তুলনামূলকভাবে তাদের অধিকতর সুযোগ দিচ্ছে। অন্যান্য নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলোর পরিস্থিতিও অনেকটা এরকমই।

[৬] আমেরিকান ইউনিভার্সিটি অব বৈরুতের জনস্বাস্থ্য বিষয়ক অধ্যাপক রিমা নাক্কাশ বলেন, ধনীদেশগুলোতে যেমন তামাকজাত প্রতিষ্ঠানগুলো যেমন রাজনৈতিক ক্ষমতা খাটাতে পারে, নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলোতেও একইরকম ক্ষমতাই খাটিয়ে থাকে। কিন্তু নিম্ন আয়ের দেশগুলোয় স্বচ্ছতার ঘাটতির কারণে তাদের সফলতার হার বেশি। প্রতিষ্ঠানগুলো সেখানে আড়ালে বেশি কাজ করার সুযোগ পায়।মানবজমিন, ডয়চে ভেলে

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত