প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] স্বাস্থ্যবিধি না মানায় কালীগঞ্জের ৮৩ জনকে ২১ হাজার টাকা জরিমানা

লালমনিরহাট প্রতিনিধিঃ [২] রোববার (২১জুন) রাত ৯টার দিকে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) রবিউল হাসান এ তথ্য নিশ্চিত করেন। এর আগে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে দিনব্যাপি ৫ টি ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়। পরিচালনার সময়ে হাট-বাজারে অযথা ঘোরাফেরা না করে ব্যক্তিদের ঘরে থাকার পরামর্শ দেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা।

[৩] জানাগেছে, রাস্তা-ঘাটে সামাজিক দূরত্ব বজায় না রেখে মানুষজন ভিড় করছে। মাস্ক ছাড়া রাস্তায় চলাফেরা করছেন। নিয়ম-নীতির তোয়াক্কা না করেই ব্যবসায়ীরা ব্যবসা পরিচালনা করে যাচ্ছে। অনেকেই করোনাভাইরাসের আতঙ্ককে পুঁজি করে বাড়তি দামে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য বিক্রি করছিলেন অনেক ব্যবসায়ী। নিয়ম-নীতির তোয়াক্কা না করেই ব্যবসায়ীরা ব্যবসা পরিচালনা করে যাচ্ছে। জেলা প্রশাসনের নির্দেশে নিয়ন্ত্রণ করার জন্য কঠোরভাবে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেছেন জেলা ও উপজেলা প্রশাসন। খবর পেয়ে লালমনিরহাটের হাট-বাজারে অভিযান পরিচালনা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। এসব অভিযানে বিভিন্ন অপরাধে ৮৩ জনকে মোট ২১ হাজার ১০০ টাকা জরিমানা করেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

[৪] অভিযান পরিচালনের সময় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা জানান, স্বাস্থ্যবিধি না মানা, নির্ধারিত সময়ের পরেও প্রতিষ্ঠান খোলা রাখা, মাস্ক না পরা, গাদাগাদি করে ক্রেতাদের দোকানে রেখে ব্যবসা পরিচালনাসহ করোনা সংক্রমণ ঝুঁকি বাড়ানোর জন্য দায়ীদের আর কোনো ছাড় দেওয়া হবে না।

[৫] উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) রবিউল হাসান বলেন, স্বাস্থ্য বিধি না মানলে প্রত্যেক ব্যক্তি, প্রতিষ্ঠানকে জেল, জরিমানা গুনতে হবে। ঘর থেকে বের হলে অবশ্যই মাস্ক পরিধান করতে হবে। ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলোকে সরকারি নির্দেশনা অনুসরণ করতে হবে। প্রত্যেক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হ্যান্ড স্যানিটাইজার বা জীবাণুনাশকের ব্যবস্থা করতে হবে। সরকার নির্ধারিত সময়ে দোকান বন্ধ করতে হবে। আমরা এখন থেকে রাত-দিন নিয়মিত অভিযান পরিচালনা করবো। সম্পাদনা: জেরিন আহমেদ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত