প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] শেরপুর জেলা প্রশাসক , প্রশাসন ক্যাডারে ২০ বছর ! সর্বমহলে, প্রশংসিত

তপু সরকার হারুন : [২] বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস প্রশাসন ক্যাডারে ২০ বছরে পদার্পণ করলেন শেরপুরের জেলা প্রশাসক জনাব আনার কলি মাহবুব । শুক্রবার সন্ধ্যায় খবরটি ছড়িয়ে পড়লে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে শেরপুরবাসীর ভালোবাসায় সিক্ত হন তিনি ।

[৩] শেরপুরে যোগদান করে তার সততা,কর্মদক্ষতা ,তৎপড়তায় ও সফলতায় সাধারণ মানুষ সহ সর্ব মহলে প্রশংসনীয় অর্জনে সক্ষম হয়েছেন। শেরপুরে যোগদানের শুরু থেকেই শোষিত, বঞ্চিত, নির্যাতিত মানুষের কল্যাণে উনার চলার গতি সত্যিই প্রশংসনীয় । ২৯ মে রাতে হঠাৎ করেই ‘ডিসি শেরপুর’ আইডি থেকে প্রোফাইলের ছবি পরিবর্তন করা হয়। এর পরেই শুরু হয় শুভেচ্ছা, অভিনন্দন ও শুভকামনা।

[৪] হোসনেআরা হোসনা নামে একজন কমেন্ট বক্সে লিখেছেন- অভিনন্দন স্যার। যত দেখি ততই মুগ্ধ হই। দোয়া ও শুভকামনা রইল। রাব্বিনুর রহমান জুয়েল নামে একজন লিখেছেন- এমন ক্রান্তিকালে আপনি আমাদের জেলা প্রশাসক, আপনিসহ জীবন বাজি রেখে শেরপুর জেলায় কর্মরত সকল প্রশাসনিক কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দের জন্য দোয়া ও শুভ কামনা রইলো।

[৫] এদিকে শেরপুর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মো: মেরাজ উদ্দিন তার প্রতিক্রিয়া জানিয়ে বলেন, জেলা প্রশাসক আনার কলি মাহবুব একজন যোগ্য অভিভাবক। তিনি সততা ও যোগ্যতার সাথে শেরপুর জেলায় প্রশাসনিক কর্মকতৎপড়তা চালিয়ে আসছেন। করোনা পরিস্থিতিতে তিনি যে ভূমিকা রেখেছেন, তাতে প্রশংসা করে শেষ করা যাবে না। শুধু তাই নয় তিনি সত্যিকারেই শেরপুরকেও ভালবেসে ফেলেছেন।

[৬] উল্লেখ্য, জেলা প্রশাসক আনার কলি মাহবুব শেরপুরে যোগদানের আগে পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের বাস্তবায়ন পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়ন বিভাগের (আইএমইডি) উপ-সচিব হিসেবে কর্মরত ছিলেন। তার আগে তিনি কুষ্টিয়ার স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক ও অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি ২০তম বিসিএস ক্যাডার হিসেবে প্রশাসনে যোগদান করেন।

সর্বাধিক পঠিত