প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] আগামী মে, জুনে খাদ্য বান্ধব কর্মসূচির মেয়াদ বৃদ্ধির প্রস্তাব প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে

আনিস তপন: [২] দুস্থ্য মানুষের সহায়তার লক্ষ্যে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের বাস্তবায়নাধীন খাদ্য বান্ধব কর্মসূচি আগামী মে ও জুন মাস অব্যাহত রাখতে একটি প্রস্তাবনা তৈরি করা হয়েছে। সোমবার এই প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা জানান, খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার। তিনি বলেন, করোনা প্রদুর্ভাবের কারণে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে আগামী দুই মাসের জন্য এই প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে।

[৩] মার্চ ও এপ্রিল মাসে চলমান খাদ্য বান্ধব কর্মসূচিটি আগামী দুই মাস বৃদ্ধির জন্য একটি প্রস্তাব সামারী আকারে প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদনের জন্য রোববার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে পাঠানো হয়েছে বলেও এসময় জানান মন্ত্রী।

[৪] সাধন চন্দ্র মজুমদার জানান, আগে থেকেই সরকার তালিকা অনুযায়ী কার্ডের মাধ্যমে খাদ্য বান্ধব কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছে।

[৫] রোববার সারাদেশের মাঠ প্রশাসনের সঙ্গে অনুষ্ঠিত ভিডিও কনফারেন্সে বিদ্যমান তালিকায় থাকা কার্ডগুলো হালনাগাদ করার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। মাঠ প্রশাসনেরর তদারকির মাধ্যমে এবার তা স্থানীয় স্কুল শিক্ষকদের মাধ্যমে বিদ্যমান কার্ড যাচাই-বাছাই করার নির্দেশ দিয়ে বলেছি, প্রকৃত সুবিধাভোগীদের চিহ্নিত করে তাদের খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চত করতে।

[৬] বিদ্যমান পুরাতন তালিকা দিয়ে শিক্ষকদের মাধ্যমে গঠিত কমিটি এলাকা ভিত্তিক সরকারের নিয়োগ দেয়া ডিলারসহ বাড়ী বাড়ী গিয়ে প্রকৃত সুবিধাভোগীদের জন্য যাচাই-বাছাই করে কার্ড নিশ্চিত করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। যাচাই-বাছাইকালে যদি কোনো ডিলারের কাছে একটিও অবৈধ কার্ড পাওয়া যায় তবে তা বতিল করতে নির্দেশ দিয়েছি।

[৭] এসব নির্দেশনা বাস্তবায়নের সঙ্গে সঙ্গে অবৈধ কার্ড চিহ্নিত করে তা বাতিলের মাধ্যম খাদ্য বান্ধব কর্মসূচিতে যদি কোনো দুর্নীতি ও অনিয়ম থাকে তার মূলোৎপাটন করার জন্য কঠোর নির্দেশনা দিয়েছি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত