প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

[১] জ্বর-কাশি থাকায় তরুণীকে বাড়িতেই ঢুকতে দিলো না স্বজনরা

বিপ্লব বিশ্বাস, পিরোজপুর থেকে: [২]জ্বর-কাশি, গলা ব্যাথা ও শ্বাসকষ্ট থাকার কারণে এক তরুণীকে বাড়িতেই ঢুকতে দেয়নি স্বজনরা। শুক্রবার রাতে পিরোজপুরের নাজিরপুর উপজেলার শাখারীকাঠী ইউনিয়নের ভাইজোড়া গ্রামে লতা (২০)নামে এক তরুণীর সাথে এ অমানবিক ঘটনাটি ঘটেছে। লতা ঢাকার একটি গার্মেন্টসে কাজ করেন।

[৩] জানা গেছে, অসুস্থ অবস্থায় শুক্রবার রাতে ঢাকা থেকে নাজিরপুর ভাইজোড়া স্ট্যান্ডে নামে মেয়েটি। বাবার বাড়িতে গেলে তার অসুস্থতা দেখে স্বজনরা তাকে বাড়িতে ঢুকতে দেয়নি। চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরতে বলেন তারা।

[৪] এ অবস্থায় লতার মা-বাবা তাকে নিয়ে মাটিভাঙ্গা বাজারে এক পল্লী চিকিৎসকের কাছে যান। উপসর্গ দেখে চিকিৎসা না করেই তাদের ফিরিয়ে দেন ওই চিকিৎসক। পরে মেয়েকে নিয়ে রাত কাটানোর জন্য তার মা-বাবা একই গ্রামে লতার নানার বাড়িতে যান। সেখানেও আশ্রয় জোটেনি তাদের। স্থানীয়রা তাকে ওই বাড়িতেও ঢুকতে দেয়নি।

[৫] বিষয়টি উপজেলা প্রশাসনকে জানালেও তাদের পক্ষ থেকে কোনো ব্যবস্থা নেয়নি।

[৬] শাখারীকাঠী ইউনিয়নের সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান খালিদ হোসেন সজল বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। পরে রাত ১১টার দিকে খালিদ হোসেন নিজেই নাজিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান তাদের। সেখানেও কেউ চিকিৎসার জন্য এগিয়ে আসেনি।

[৭] এ নিয়ে স্থানীয় এক সাংবাদিক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লিখলে বিষয়টি নজরে আসে স্থানীয় সংসদ সদস্য ও মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ মন্ত্রী শ.ম. রেজাউল করিমের। তিনি উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগকে ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দেন। সঙ্গে সঙ্গে নাজিরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. ফজলে বারী মেয়েটির চিকিৎসা সেবায় তৎপর হয়ে ওঠেন।

[৮] ডা. ফজলে বারী জানান, মেয়েটির অতিরিক্ত ঠান্ডা লাগায় গলা ব্যথা ও হালকা জ্বর হয়েছে। তার মধ্যে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হওয়ার লক্ষণ পাওয়া যায়নি।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত