প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মুক্তির নিশ্চয়তা পেলে জামিন আবেদন করবেন খালেদা জিয়া

আলআমিন ভূঁইয়া : সরকারের তরফ থেকে জামিন আবেদনের বিরোধিতা করা হবে না, এমন নিশ্চয়তা পেলেই বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য জামিন আবেদন করতে চায় দল ও তাঁর পরিবার। এ বিষয়ে বেগম জিয়ার সায় রয়েছে বলেও জানা গেছে।

চেয়ারপারসনের আইনজীবীরা বলছেন, সরকার চাইলে জামিনের বিরোধিতা না করে বা ‘বিশেষ বিবেচনায়’ খালেদা জিয়ার মুক্তি দিতে পারে।

বিএনপি চেয়ারপারসন নিজের মুক্তির জন্য কোনো আবেদন করতে চান না উল্লেখ করে তাঁর পরিবারের সদস্য ও দলটির কয়েকজন নেতা বলেছেন, খালেদা জিয়ার জামিন পাওয়ার অধিকার আছে।

দলীয় চেয়ারপারসনের সুচিকিৎসার জন্য সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছেন, এ কথা জানিয়ে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান বলেন, যে কোনো উপায়ে তাঁরা খালেদা জিয়ার মুক্তি চান এবং তাঁরা সব প্রক্রিয়াতেই চেষ্টা করেছেন।

এ প্রসঙ্গে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, খালেদা জিয়ার মুক্তি চেয়ে কোনো আবেদন বিএনপি বা তাঁর পরিবার করেননি। ফলে এটি বিবেচনার প্রশ্নও আসছে না।

গতকাল শুক্রবার সংবাদ সম্মেলনের আগে সচিবালয়ে ওবায়দুল কাদের জানান, বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর তাঁকে ফোনে খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীকে বলতে বলেছিলেন।

খালেদা জিয়ার বোন সেলিমা ইসলাম বলেন, তাঁর বোন খুবই অসুস্থ। তাঁরা যেকোনো উপায়ে তাঁর মুক্তি চান। প্যারোলে হলেও। কেননা, তাঁর সুচিকিৎসা দরকার। এ সময়, খালেদা জিয়াকে সুচিকিৎসা দিতে পরিবারের পক্ষ থেকে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করেছেন বলেও জানান তিনি।

সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার প্যারোল প্রসঙ্গ বারবার এলেও তাতে রাজি নন তিনি। যে মামলায় তাঁকে কারাবন্দী করা হয়েছে, সেই মামলায় জামিন পাওয়াটা তাঁর অধিকার বলে মনে করেন খালেদা জিয়া। এটা আদালতকে একসময়ে দিতেই হবে।

বিএনপির একটি সূত্র জানায়, সরকার নীতিগতভাবে ইতিবাচক কোনো সিদ্ধান্ত না নিলে মুক্তির কোনো চেষ্টা করে লাভ নেই। তবে তৃতীয় কোনো পক্ষের সমঝোতায় সন্তোষজনক সমাধান না হলে কোনো পক্ষই ছাড় দেবে না বলে জানান তিনি।

এর আগে মানবিক বিবেচনায় খালেদা জিয়ার জামিন চেয়ে তাঁর আইনজীবীরা আবেদন করলেও তা খারিজ হয়ে যায়। সর্বশেষ গত ১২ ডিসেম্বর খালেদা জিয়ার জামিন আবেদনের শুনানিতে মেডিকেল রিপোর্ট জমা দেয়া হয়। হাইকোর্টের আপিল বিভাগ জামিন আবেদন খারিজ করে খালেদা জিয়ার সম্মতিতে বোর্ডের সুপারিশ অনুযায়ী চিকিৎসার নির্দেশ দেন। সম্পাদনা : সালেহ্ বিপ্লব

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত