প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘অপরাধী’ প্রার্থীদের বিষয়ে রাজনৈতিক দলগুলোর জবাবদিহিতা চাইলো ভারতের সুপ্রিম কোর্ট

রাশিদ রিয়াজ, আসিফুজ্জামান পৃথিল : সুপ্রিম কোর্টের রায় অনুযায়ী ভারতের রাজনৈতিক দলগুলোকে এখন থেকে নির্বাচনী প্রার্থীদের নামের তালিকার সঙ্গে তাদের অপরাধের খতিয়ান বা ‘ক্রিমিনাল রেকর্ডস’ প্রকাশ করতে হবে। বিবিসি, এনডিটিভি

ভারতের সর্বোচ্চ আদালতটি বলছে, দেশটির নির্বাচনগুলিতে অপরাধী প্রার্থীদের অংশগ্রহণ আশঙ্কাজনকভাবে বাড়ছে। রায় প্রকাশের ৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই সব দলকে নিজ নিজ পার্টি ওয়েবসাইট ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এই তালিকা প্রকাশ করতেই হবে।

২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনে নির্বাচিত এমপিদের ২৪ শতাংশেরই ক্রিমিনাল রেকর্ড ছিলো ২০১৪ সালে যা ছিলো ৩৪ শতাংশ। অ্যাসোসিয়শন অব ডেমোক্রেটিক রিফর্মস-এডিআর এই তথ্য জানিয়েছে।

এরমধ্যে কিছু কিছু অপরাধ নগন্য এবং রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রনোদিত। তবে বেশ কিছু অভিযোগ গুরুতর, যেমন; তুরি, মরকারি কর্মকর্তাদের হামলা ও হেনস্থা, খুন এমনকি ধর্ষণও।

আদালত প্রশ্ন রেখেছেন, কেনো পরিচ্ছন্ন প্রার্থী খুঁজে পাচ্ছে না দলগুলো। জেতার সম্ভাবনা এই সকল অপরাধ ঢাকার কোনও কারণই হতে পারে না বলে মনে করেন আদালত।

সুপ্রিম কোর্ট নির্বাচন কমিশনকে নির্দেশ দিয়েছেন, এই তথ্য যেনো অবশ্যই দলগুলোকে জানিয়ে দেয়া হয়। সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতিরা স্পষ্ট জানিয়েছেন, যদি রাজনৈতিক দলগুলি আদালতের নির্দেশমতো দলীয় প্রার্থীদের বিবরণ দিতে ব্যর্থ হয়, তবে তা আদালত অবমাননা বলেই বিবেচিত হবে।

আইনজীবী অশ্বিনী কুমার উপাধ্যায় এবং আরও কয়েকজনের দায়ের করা আদালত অবমাননা সংক্রান্ত একটি আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে এই রায় দেয়া হলো।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত