প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ভারতের প্রতিটি থানায় নারী হেল্প ডেস্ক, ১০০ কোটি বরাদ্দ কেন্দ্রের

রাশিদ রিয়াজ : ভারতের প্রতিটি থানায় উইমেন হেল্প ডেস্ক তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এ জন্য প্রাথমিকভাবে ১০০ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে। নির্ভয়া তহবিল থেকে এই অর্থ দেওয়া হবে।  এই ডেস্কে মহিলা পুলিশকর্মী নিয়োগ করা হবে। এ ছাড়াও প্যানেলে থাকবেন বিশেষজ্ঞ আইনজীবী, মনোস্তত্ত্ববিদ্ এবং স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যরা। এই সময়

হায়দ্রাবাদে ২৬ বছর বয়সী এক পশু চিকিত্‍‌সককে গণধর্ষণ ও খুনের ঘটনায় সারাভারত স্তম্ভিত ও ক্ষুব্ধ। এই ঘটনা একইসঙ্গে যেমন দেশে নারী নিরাপত্তা নিয়ে গুরুতর প্রশ্ন তুলে দিয়েছে তেমনই পুলিশের বিরুদ্ধে উঠেছে গাফিলতির অভিযোগ। কারণ, সেদিন পুলিশ দ্রুত তৎপর হলে হয়তো তরুণীকে বাঁচানো যেত বলে নির্যাতিতার পরিবারের তরফে অভিযোগ করা হয়েছে। এই প্রেক্ষাপটে ভারতের প্রতিটি থানায় উইমেন হেল্প ডেস্ক তৈরির সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

কোনও অভিযোগ নিয়ে মহিলারা থানায় এলে তাঁদের সঙ্গে সংবেদনশীল আচরণ না করার অভিযোগ মাঝেমধ্যেই ওঠে। হায়দ্রাবাদের ক্ষেত্রেও এমনই ঘটনা ঘটেছিল বলে অভিযোগ। নির্যাতিতার পরিবারের অভিযোগ, সেদিন পুলিশ সঠিক সময়ে তৎপর হয়নি। দিদির বিপদের ইঙ্গিত পেয়ে সেদিন থানায় গেলেও শুরুতেই কোনও সাহায্য পাননি নির্যাতিতার ছোট বোন। তাঁকে এক থানা থেকে অন্য থানায় ঘোরানো হয়। আর সে জন্য দু’থেকে তিন ঘণ্টা চলে যায়।

নারীদের ক্ষেত্রে কিভাবে আরও সংবেদনশীল হওয়া যায় সেই বিষয়ে উইমেন হেল্প ডেস্কের আধিকারিকদের বিশেষভাবে প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। এই ডেস্কে মহিলা পুলিশকর্মী নিয়োগ করা হবে। এ ছাড়াও প্যানেলে থাকবেন আইনজীবী, মনোস্তত্ত্ববিদ্ এবং স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যরা। থানায় আসা মহিলাদের অন্য বিষয়ের পাশাপাশি আইনি সহায়তা, কাউন্সেলিং, আশ্রয়, পুনর্বাসন এবং প্রশিক্ষণের বন্দোবস্ত করে দেওয়া এর মূল উদ্দেশ্য।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত