প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সৌরভের আমন্ত্রণপত্র গ্রহণ করে কলকাতায় পৌঁছালেন অভিষেক টেস্টের ক্রিকেটাররা

স্পোর্টস ডেস্ক : আজ দুপুর দেড়টায় কলকাতার ইডেন গার্ডেনে বাংলাদেশ প্রথম টেস্টে মুখোমুখি হবে ভারতের। খেলা হবে গোলাপি বলে, থাকবে ফ্লাডলাইটের আলোও। এ আয়োজনকে আকর্ষণীয় করতে, টেস্টকে স্মরণীয় করে রাখতে নানা উদ্যোগ ও কার্যক্রম হাতে নিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গ তথা ভারতের ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন বিসিসিআইয়ের কর্ণধার সৌরভ গাঙ্গুলি। বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে এ টেস্ট দেখার আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।

এছাড়া ২০০০ সালের ১০-১৪ নভেম্বর ঢাকার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশের যে দলটি নিজেদের অভিষেক টেস্ট খেলেছিলো, সেই নাইমুর রহমান দুর্জয় বাহিনীর সবাইকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। জানা গেছে, সেই প্রথম টেস্ট স্কোয়াডের দুজন-আমিনুল ইসলাম বুলবুল আর আল শাহরিয়ার রোকন ছাড়া সবাই কলকাতায় পৌঁছেও গেছেন।

প্রথম টেস্ট ক্যাপ্টেন অধিনায়ক ও অভিষেকে ৬ উইকেট শিকার করে রেকর্ড বইয়ে নিজের নাম স্বর্ণাক্ষরে লিখে ফেলা নাইমুর রহমান দুর্জয়, প্রথম হাফ সেঞ্চুরিয়ান হাবিবুল বাশার, প্রথম বল মোকাবেলা করা শাহরিয়ার হোসেন বিদ্যুৎ, প্রথম বল করা হাসিবুল হোসেন শান্ত, একটি ত্রিশোর্ধ্ব অথচ সাবলীল ইনিংস খেলা আকরাম খান এবং পেসারদের মধ্যে প্রথম উইকেট শিকারি বিকাশ রঞ্জন দাস (এখন ধর্মান্তরিত হয়ে মাহমুদুল হাসান), দ্বাদশ ব্যক্তি হিসেবে ফিল্ডিংয়ে নেমেও দুই দুটি ক্যাচ ধরা রাজিন সালেহও আছেন।

সবাই এখন কলকাতায়। গতকাল দুপুরের ফ্লাইটে পুরো বহর কলকাতা গেছেন। বাংলাদেশ সময় বিকেল পাঁচটার দিকে ঐ প্রথম টেস্ট স্কোয়াডের বহর কলকাতা বিমান বন্দরে অবতরন করে। সেখানে পা রাখার পর হাবিবুল বাশার সুমন বলেন, ‘আমরা বিকেল পাঁচার পর কলকাতায় পা রেখেছি। তবে বুলবুল ভাইকে মিস করছি।’

মোদ্দা কথা, অভিষেক টেস্ট দলে থাকাদের মধ্যে যে দুজন এখন প্রবাসী, সেই আমিনুল ইসলাম বুলবুল (অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী) আর আল শাহরিয়ার রোকন (নিউজিল্যান্ডে স্থায়ীভাবে বসবাস করেন) শুধু নেই এ বহরে। এর মধ্যে অভিষেক টেস্টে শতরান করে অনেক বড় কীর্তি গড়া আমিনুল ইসলাম বুলবুলের কথা একটু বেশী করেই মনে পড়ছে সবার। কারণ এ মিলনমেলায় তিনিই হতে পারতেন মধ্যমণি।

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত