প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

চট্টগ্রামে গ্যাস লাইন বিস্ফোরণ: ঘটনা তদন্তে ২টি কমিটি, আহতদের সব ধরনের সহায়তার আশ্বাস চসিক মেয়রের

জান্নাতুল ফেরদৌসী: নগরীর পাথরঘাটা ব্রিকফিল্ড রোডের কুঞ্জমনি ভবনে গ্যাস লাইন বিস্ফোরণে দেয়াল ধসে ৭ জন নিহত ও ১৭ জন দগ্ধসহ আহত হয়েছে ২০ জন। রোববার সকাল ৯টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতদের মধ্যে ৪ জন পুরুষ, ২ জন নারী ও ১ জন শিশু রয়েছে। সূত্র: বাংলানিউজ টোয়েন্টিফোর

দুর্ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যান চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। মেয়র বলেন,  আহতদের সর্বোচ্চ চিকিৎসার ব্যবস্থা করবো। তাদের যাবতীয় খরচ সিটি করপোরেশন বহন করবে। ৭ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। ফায়ার সার্ভিস, আমাদের দুজন কাউন্সিলর যথেষ্ট কষ্ট করেছে। জনগণকে সচেতন হতে হবে। একটি দুর্ঘটনা অপূরণীয় ক্ষতি। সব কর্তৃপক্ষের পাশাপাশি ভবন মালিক ও ভাড়াটিয়াদের গ্যাস, বিদ্যুতের লাইনে লিকেজ আছে কিনা নিয়মিত তদারকি করতে হবে। ব্যবহারকারীরা সচেতন হলে দুর্ঘটনা এড়ানো সম্ভব।

তিনি বলেন, শহরটা পরিকল্পিত না। সিডিএ নকশা অনুমোদন করে। নকশা অনুযায়ী ভবন হচ্ছে না। নজরদারির জন্য প্রয়োজনীয় জনবল সেবা সংস্থার নেই। চসিক, ফায়ার সার্ভিস, সিডিএ, জেলা প্রশাসন, কর্ণফুলী গ্যাসের প্রতিনিধি নিয়ে কমিটি গঠন করা হবে। এসময় শোকাহত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান মেয়র।

মেয়রের একান্ত সচিব রায়হান ইউসুফ বলেন, নিহতদের মরদেহ গ্রামের বাড়িতে পাঠাতে মেয়রের পক্ষ থেকে গাড়ি ভাড়া ও দাফনের জন্য ২০ হাজার টাকা করে দেওয়া হচ্ছে। ৭টি পরিবারকে পরবর্তীতে আরও ১ লাখ টাকা করে দেওয়া হবে। এছাড়া আহত সবার সুস্থ হওয়া পর্যন্ত চিকিৎসার সব খরচ বহন করবে চসিক।

এছাড়া ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন ওয়ার্ড কাউন্সিলর ইসমাইল বালি, জহরলাল হাজারী, শৈবাল দাশ সুমন, চসিক প্রধান প্রকৌশলী লে. কর্নেল সোহেল আহমদ প্রমুখ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত