প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শ্রীমঙ্গলে এক রাতে ৭টি মন্দিরে চুরি!

স্বপন দেব, মৌলভীবাজার : মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গল উপজেলায় এক রাতেই ৭টি মন্দিরে চুরি ও প্রতিমা ভাঙ্গচুরের ঘটনা ঘটেছে। সোমবার দিবাগত রাতে শ্রীমঙ্গলের ভ‚নবীর ইউনিয়নের ভীমশী ও ভুনভীর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এধরণের ঘটনায় স্থানীয় হিন্দু সম্প্রদায়ের মধ্যে আতঙ্ক ও চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে। জানা যায়, গ্রামের মহাদেব বাড়ি, শিববাড়ি, হর গৌরী আখড়া, মদন মোহন আখড়া, পাল পাড়ার সার্ব জনীন দূর্গা মন্দির, ভীমশী মন্দির, দিনেশ লালের বাড়ির মহাদেব মন্দিরে চুরি করেছে একটি দুষ্কৃতিকারী চক্র।

এলাকাবাসী জানান, এসব মন্দির থেকে দেব-দেবীর পিতলের তৈরী মুর্তি, থালা বাসন ও দান বাক্সে রক্ষিত টাকা চুরি করে নিয়ে যায় এবং মন্দিরের কয়েকটি প্রতিমাও ভাঙচুর করে ফেলে যায় দুস্কৃতিকারীরা। এতে নগদ টাকাসহ প্রায় ৪ লক্ষ টাকার মালামাল চুরি হয়েছে।

এব্যাপারে শ্রীমঙ্গল উপজেলা পুজা উদযাপন কমিটির সাধারন সম্পাদক সুশীল শীল জানান, শ্রীমঙ্গলে দীর্ঘকাল ধরে হিন্দু-মুসলিম শান্তিপূর্ণভাবে বসবাস করে আসছেন। এধরণের ঘটনা এলাকার শান্তি শৃঙ্খলা বিনষ্ট করার চেষ্ঠা বলে এলাকাবাসী মনে করেন। এক রাতে ৭টি মন্দিরে চুরির ঘটনা কোনো স্বাভাবিক ঘটনা নয়। মঙ্গলবার জেলা পুলিশ সুপার মো: ফারুক আহমেদ ঘটনাস্থল পরিদর্শণ করেন এবং দ্রুত দুষ্কৃতকারীদের আটকের নির্দেশ দেন ।

এছাড়া মঙ্গলবার (১২ নভেম্বর) সকালে উপজেলা চেয়ারম্যান রনধীর কুমার দেব, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি ডা. হরিপদ রায়, যুগ্ন সাধারন সম্পাদক মো: আকরাম খান, পুজা উদযাপন পরিষদের নেতৃবৃন্দসহ সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (শ্রীমঙ্গল- কমলগঞ্জ সার্কেল) আশরাফুজ্জামান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

এব্যাপরে শ্রীমঙ্গল থানা অফিসার ইনচার্জ মো: আব্দুছ ছালেক জানান, সার্বিক অবস্থা পরিদর্শনে পেশাদার চুরেরা এ ঘটনা গুলো ঘটিয়েছে বলে প্রতিয়মান হয়েছে। ঘটনাটি গুরুত্ব সহকারে তদন্ত করা হচ্ছে। টিএ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত