প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

অনুশীলনের জন্য ৬০টি গোলাপি বল পাবেন মুমিনুল-কোহলিরা

রাকিব উদ্দীন : কলকাতার ইডেন গার্ডেনে আগামী ২২ নভেম্বর সর্বপ্রথম গোলাপি বলের ক্রিকেট খেলে ইতিহাস গড়তে যাচ্ছে বাংলাদেশ ও ভারত। যদিও গত দিবারাত্রীর গত ম্যাচগুলোতে খেলা হতো কোকাবুরা আর ডিউকের গোলাপি বল দিয়ে। তবে বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচে খেলা হবে এসজি কোম্পানির বল দিয়ে।

এরই মধ্যে প্রথম ধাপে ভারতীয় বোর্ডকে এসজি বল দেওয়ার সব প্রস্তুতি সম্পন্ন। এসজি কোম্পানির মার্কেটিং অ্যান্ড সেলস ডিরেক্টর পরশ আনন্দ জানিয়েছেন, ‘আমরা প্রথম ধাপে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের কাছে বল পৌঁছে দেওয়ার সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছি। ৭২টি বল চাওয়া হলেও পরের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী প্রথম ধাপে বোর্ডের কাছে দেওয়া হবে ৬০টি (৫ ডজন) বল। সেগুলো বাংলাদেশ আর ভারতের অনুশীলনের জন্য ভাগ করে দেওয়ার কথা শুনেছি। বোর্ডের সবুজ সংকেত পাওয়া মাত্র আমরা ম্যাচে খেলার বল পাঠিয়ে দেব।’

এর আগে গত ৭ নভেম্বর এসজি কোম্পানি থেকে কিছু গোলাপি বল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডে পাঠানো হয়। কোম্পানির কিছু সীমাবদ্ধতা (লজিস্টিক) থাকায় শুরুতেই সব বল পাঠানো হয়নি।

আগামী ১৪ নভেম্বর ইন্দোরে শুরু প্রথম টেস্ট। ম্যাচ পাঁচদিন গড়ালে দ্বিতীয় ম্যাচের আগে দুই দল হাতে পাবে তিন দিন। তিন দিনের অনুশীলনের জন্য দেওয়া হবে ৬০টি বল। ম্যাচ ডে’র আগেই ভারতীয় বোর্ডে পৌঁছে যাবে দিবারাত্রির গোলাপি এসজি বল।

সর্বাধিক পঠিত