প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সেন্টমার্টিনে হোটেলের কাছে সমুদ্রের পানি, আতঙ্কিত পর্যটকরা

লাইজুল ইসলাম: বাংলাদেশের একমাত্র প্রবাল দ্বীপ সেন্টমার্টিন। সাগর শান্ত থাকায় প্রতিবছর এই সময়টায় সেখানে ঘুরতে যান পর্যটকরা। তবে হঠাৎ করেই ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ চলে আসায় সাগর উত্তাল হয়ে পরে। ঘূর্ণিঝড়ের কারণে সেন্টমার্টিন দ্বীপে গিয়ে আটকা পরেছে সরকারি হিসেব অনুযায়ী ১২০০ পর্যটক। তবে স্থানয়ীদের হিসেব অনুযায়ী তা আরো বেশি।

সাগরে ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের কারণে সেন্টমার্টিনে আটকা পড়াদের মধ্যে পর্যটক কামাল আজাদ কমল বলেন, এই মুহূর্তে আমাদের সবার মধ্যেই আতঙ্ক কাজ করছে। আমরা ভয়ে আছি। পরিবারের সদস্যদের নিয়ে ঘুড়তে এসে এক প্রকার বিপদেই পরেছি। সাগরের পানি সমুদ্রের পাশের রিসোর্টগুলোর কাছাকাছি চলে এসেছে। যা দেখে আমরা আরো বেশি আতঙ্কগ্রস্থ হয়ে পরেছি।

পরিবার সমেত ঘুরতে গেছেন রাজিয়া সুলতানা। তিনি বলেন, আমরাতো এমন উত্তাল ঢেউ বা সাগরের এমন গর্জন শুনে অভ্যস্ত না। রাতে সাগরের গর্জনে এতটাই আতঙ্কগ্রস্থ ছিলোম, আমরা কেউই ঘুমাতে পারিনি। দেশ বিদেশে থাকা স্বজনরা ফোন করে খোঁজ খবর নিচ্ছেন। সেন্টমার্টির দ্বীপের স্থানয়িরা পর্যটকদের সাহস সঞ্চার করছে।

আরেক পর্যটক দম্পতি তুহিন ও তানিয়া সুলতানা জানান, এই অবস্থায় আমরা দুজনই আমাদের বাচ্চাদের নিয়ে চিন্তিত। ওরাতো ভয়াবহ পরিস্থিতি বুঝতে পারছে না। তবে আমরাতো দেখছি। এমনিতে সেন্টমার্টিনে অন্যকোনো সমস্যা নেই। এলাকার লোকজনও অনেক সাহায্য করছে। যত দ্রুত সম্ভব এখান থেকে আমরা ছাড়া পেতে চাই।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত