প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

দুদক জিজ্ঞাসাবাদে জি কে শামীমের তিন হাজার কোটি টাকার সম্পদের কথা স্বীকার ও সুবিধাভোগীদের নাম প্রকাশ

মঈন মোশাররফ : দুদকের জিজ্ঞাসাবাদে জি কে শামীম তার সম্পদের পরিমাণ প্রকাশ করেছে। কিন্তু দুদক তাদের চার্জশিটে তার অবৈধ সম্পদের বিষয়টিই রাখবে, সুবিধাভোগীদের নয়। তবে এই বিষয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এখনও কিছু জানায়নি দুদক। ডয়চে ভেলে

জি কে শামীমকে দুই বছর আগে একটি রাজনৈতিক দলের সহযোগী সংগঠনকে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের এক অনুষ্ঠান উপলক্ষে চার কোটি টাকা দেন। ওই সংগঠনকে মাসে দিতেন ৫০ লাখ টাকা। আর যেকোনো ধরনের অনুষ্ঠান হলেই দিতেন ১০ লাখ টাকা। সংগঠনটির শীর্ষ নেতাকে এরই মধ্যে অপসারণ করা হয়েছে। জানা গেছে জি কে শামীম জিজ্ঞাসাবাদে এখন পর্যন্ত তিন হাজার কোটি টাকার সম্পদের কথা স্বীকার করেছেন। বাংলাদেশ ছাড়াও সিংগাপুর, থাইল্যান্ড ও মালয়েশিয়ায় তার সম্পদ রয়েছে বলে জানিয়েছেন। তিনি দুবাইতে বসবাসের কথা ভাবছিলেন। ডিসেম্বর মাসেই সেখানে তার ফ্ল্যাট কেনার কথা ছিলো।

এ প্রসঙ্গে দুদক চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ ডয়চে ভেলেকে বলেন, জিজ্ঞাসাবাদে পাওয়া তথ্য আমরা যাচাই বাছাই করব। তারপর আমরা সিদ্ধান্ত নেবো আরো মামলা হবে কিনা বা আমরা কতটুকু এগুবো।

শুরুতে শামীমকে আটকের পর ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা বিভাগ (ডিবি) রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করে। এরপর র‌্যাব তদন্তের দায়িত্ব পায়। ডিবি উত্তরের উপ কশিনার মশিউর রহমান বলেন, জিজ্ঞাসাবাদে আমরা কী পেয়েছি তা প্রকাশ করা যাবে না, যা পেয়েছি তা সবই র‌্যাবকে পাঠিয়েছি। আমরা প্রধানত তার অর্থের উৎস, সুবিধাভোগী, সম্পদের পরিমাণ এইসব বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করেছি। সম্পাদনা : রাশিদুল

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত