প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ভীতি কাটিয়ে আবারও আকাশে উড়বে ম্যাক্স ৭৩৭

মুসবা তিন্নি : ২০১৮ সালের অক্টোবরে ইন্দোনেশিয়ায় ও চলতি বছরের মার্চে ইথিওপিয়ায় বোয়িং এর ৭৩৭ ম্যাক্স মডেলের দুটি যাত্রীবাহী উড়োজাহাজ বিধ্বস্ত হয়। এতে দুই বিমানে থাকা মোট ৩৪৬ জন যাত্রী নিহত হন। এরপর থেকে ৭৩৭ ম্যাক্স বিমানে উড়তে ভীতি কাটছে না যাত্রীদের। জাগো নিউজ

রোববার ফরাসি বার্তা সংস্থা এএফপির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ৭৩৭ ম্যাক্স বিমানের দুটি বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটে যাওয়ার পর ম্যাক্সের প্রতি আস্থা কমে গেছে। মাত্র ১৯ শতাংশ যাত্রী, যারা নিয়মিত যাতায়াত করেন, তারা পুনরায় এই বিমানে উড়তে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। অপরদিকে, অনিয়মিত যাত্রীদের ক্ষেত্রে এই সংখ্যা আরও কম, মাত্র ১৪ শতাংশ। সবচেয়ে বড় কথা হলো অন্তত এক হাজার যাত্রী বলেছেন, দরকার হলে আমরা ৭৩৭ ম্যাক্সের চেয়ে অতিরিক্ত ভাড়া পরিশোধ করব, তারপরও ওই বিমানে উড়ব না।

অপরদিকে, বিশ্ব ফ্লাইট নিয়ে জরিপ পরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠান অ্যাটমস্ফেয়ার রিসার্চ গ্রুপের প্রেসিডেন্ট হেনরি হারটেভেল্ট জানিয়েছেন, নিয়মিত যাত্রীদের অর্ধেক এবং অনিয়মিত যাত্রীদের ৫৫ শতাংশই বোয়িংয়ে যাত্রাকে ‘অনিরাপদ’ বলে অভিহিত করেছেন।

এর আগে পাঁচ মাসের ব্যবধানে দুটি দুর্ঘটনার পর ওই মডেলের বিমান চলাচলে নিরাপত্তার সংশয় থেকে অনেক দেশই এই বিমানের চলাচল বাতিল করে। বাধ্য হয়ে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বোয়িং ৭৩৭ ম্যাক্স ৮ বিমান চলাচল বন্ধ করে দেয় এর নির্মাতা প্রতিষ্ঠান বোয়িং।

তবে পুনরায় একই মডেলের বিমান সার্ভিস চালু করার ঘোষণা দিয়েছে বোয়িং। তবে এটা এখনও নিশ্চিত নয় যে ঠিক কখন ম্যাক্স আবার সেবায় ফিরবে। যাত্রী সেবা চালুর আগে ম্যাক্স ৭৩৭ এর এমসিএএস সিস্টেমের পরিমার্জিত সংস্করণ জমা দিতে হবে বোয়িংকে। আশা করা যায়, প্রক্রিয়াটি চলতি মাসের শেষের দিকে শেষ হতে পারে। সম্পাদনা :মহসীন

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত