প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শিশু তুহিনের ক্ষতবিক্ষত দেহটা দেখার পর নিঃশ্বাস নিতে আমার কষ্ট হচ্ছে

লোপা হোসেন : একটা ছোট্ট শিশু ক্ষতবিক্ষত, পেটে দুটো ছুরি ঢোকানো, গলায় রশি বেঁধে লাশ ঝুলিয়ে রাখা ছবিটা দেখার পর থেকে নিঃশ্বাস নিতে কষ্ট হচ্ছে। আর একটা প্রশ্ন মাথায় ঘুরছে এই খুনটাও কি ছাত্রলীগ, যুবলীগ, আওয়ামী লীগের কেউ করেছে নিজের ক্ষমতা জাহির করতে? অথবা বিএনপি, শিবিরের কেউ করেছে কি সরকারকে বিব্রত করতে? আজকাল তো এই দুই পক্ষ ছাড়া আর কেউ অপরাধ করে না বলেই জানি। আমরা দোষারোপ আর পরিস্থিতির ফায়দা লোটার মধ্যে ইচ্ছাকৃত বা অনিচ্ছাকৃতভাবে আটকে গিয়ে আসল সমস্যাকে পাশ কাটিয়ে যাচ্ছি বারবার। আমরা এখন ভয়াবহ সামাজিক এবং নৈতিক অবক্ষয়ের শিকার। আমাদের শিক্ষা ব্যবস্থা আমাদের নৈতিক হতে শেখাচ্ছে না।

পরিবার আমাদের কেবল প্রতিযোগিতা শেখাচ্ছে। ধর্ম যারা শেখাচ্ছেন, তারা বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই ধর্মের ভুল ব্যাখ্যা শেখাচ্ছেন। ‘মানবিকতা’ নামক বৈশিষ্ট্যটি যা মানুষকে পশু থেকে আলাদা করে, সেটিই আজ মানুষের মধ্যে অনুপস্থিত। আর ‘মানসিক স্বাস্থ্য’ বলে যে কিছু আছে, তা তো মনে হয় নব্বই শতাংশ মানুষই জানে না। আর জানলেও পাত্তা দেয় না। চারদিকে অসংখ্য মানসিকভাবে অসুস্থ মানুষ ঘুরে বেড়াচ্ছে, যারা একটু কাউন্সেলিং পেলে সুস্থ হয়ে যেত। কিন্তু এই বিষয়টার কোনো গুরুত্ব নেই আমাদের কাছে। হে আল্লাহ, আমাদের তুমি হেদায়েত করো। আমাদের সুপথ দেখাও। এ দেশের মানুষগুলোকে সুস্থ এবং ভালো মানুষ হওয়ার পথ দেখাও আল্লাহ। ফেসবুক থেকে

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত