প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

জাতীয় স্বার্থে গৃহীত প্রশাসনিক সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে কেউ আপিল করতে পারবে না, কাশ্মীর পরিস্থিতি বিষয়ে সুপ্রিম কোর্টকে জানালো সরকার

সাইফুর রহমান : জম্মু-কাশ্মীর সরকারের পক্ষ থেকে বুধবার এ বিষয়ে সুপ্রিমকোর্টে শুনানি শেষে এই তথ্য জানানো হয়।কোর্টে জমা পড়া সব আবেদনের প্রেক্ষিতে কাশ্মীর সরকারের পক্ষে সলিসিটর জেনারেল তুষার মেহতা এবং বিচারক এনভি রমনার নেতৃত্বে চার বিচারপতির সমন্বয়ে গঠিত একটি বেঞ্চ শুনানিতে অংশ নেয়।যুক্ততর্ক শেষে মেহতা জানান, সুপ্রিমকোর্ট সরকারের আহ্বান বিবেচনা করে দেখতে পারে। -দি হিন্দু

সলিসিটর জেনারেল মেহতার বক্তব্যের সূত্র ধরে বিচারপতি বি আর গাভানি জানান, সরকারের যেকোনো প্রশাসনিক সিদ্ধান্ত কোর্ট বেশ ভালোভাবেই আমলে নেবে। বিচারপতি গাভাই এবং সুভাষ রেড্ডি জানিয়েছেন, আমরা সরকারের আদেশ পরীক্ষা নিরীক্ষা করে দেখতে পারি। এদিকে বিচারপতি রমনা জানান, আদালত জানতে চাইবে সরকার কেনো এখনো এবিষয়ে সুনির্দিষ্ট আদেশ উপস্থাপন করে নি। তিনি আইন কর্মকর্তা মেহতাকে সরকারের নির্দেশের পক্ষে তথ্যপ্রমাণ উপস্থাপন করার অনুরোধ জানান।

এদিকে, আবেদনকারীদের পক্ষে সিনিয়র অ্যাডভোকেট দুশিয়ন্ত দেব জানান, আমরা সলিসিটরের বক্তব্য অনুযায়ী কোনোধরনের আপিল করতে বসে নেই। তবে ৭ সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও সরকারের পক্ষ থেকে আদেশের কোনো তথ্যপ্রমাণ বা রেকর্ড এখন পর্যন্ত তারা উপস্থাপন করে নি। বিচারপতি বেঞ্চের প্রতি আর্জি জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা হাতে হাত রেখে লড়াই করছি, সরকারকে আর সময় দেয়া কোর্টের উচিৎ নয়। অবশ্য আদালত এই আদেশের পক্ষে পর্যাপ্ত তথ্যপ্রমান উপস্থাপনের জন্য সরকারকে ২৪ আগস্ট দিন ধার্য্য করে দেয়। তবে সরকারের জন্য এটাই শেষ সুযোগ কিনা তা স্পষ্ট করে জানায় নি আদালত।

গত ৪ আগস্ট জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা প্রত্যাহার করে রাজ্যটিকে কেন্দ্রশাসিত বিশেষ অঞ্চলে পরিণত করার মধ্য দিয়ে নাগরিকদের মৌলিক অধিকার হরণ করে ভারত সরকার।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত