প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিশ্বজুড়ে বাড়ছে অভিবাসনের হার, ষষ্ঠ বাংলাদেশ, শীর্ষে ভারত

লিহান লিমা: ২০১৯ সালে বিশ্বজুড়ে আন্তর্জাতিক অভিবাসীদের তালিকায় ষষ্ঠ স্থানে রয়েছে বাংলাদেশ। এই বছর বিশ্বেজুড়ে ৭৮ লাখ বাংলাদেশির সংখ্যা রেকর্ড করা হয়েছে। বুধবার জাতিসংঘের নতুন এক প্রতিবেদনে এই তথ্য উঠে আসে। ইউএননিউজ

জাতিসংঘের সমীক্ষায় দেখা যায়, এই বছর বিশ্বজুড়ে অভিবাসীর সংখ্যা ২৭ কোটি ২০ লাখ। এই প্রতিবেদনে একদেশে জন্মগ্রহণ করে অন্যদেশে স্থায়ীভাবে বসবাসকারীদের সংখ্যা তুলে ধরা হয়। এতে দেখা যায়, বিশ্বের এক-তৃতীয়াংশ অভিবাসীই ১০টি দেশ থেকে এসেছে।

জাতিসংঘ জানায়, বিদেশে বসবাসরত ১ কোটি ৮০ লাখ অভিবাসী নিয়ে এর শীর্ষে রয়েছে ভারত। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে মেক্সিকানরা, বিশ্বের বিভিন্ন দেশে মেক্সিকান অভিবাসী ১২ কোটি। তৃতীয় স্থানে থাকা চীনা অভিবাসী ১১ কোটি। রুশ ফেডারেশনের অভিবাসী ১০ কোটি ও সিরিয়ান আরব রিপাবলিকের অভিবাসী ৮ কোটি। সপ্তম স্থানে থাকা পাকিস্তানের অভিবাসী ৬৩ লাখ, ইউক্রেনের ৫৯ লাখ, ফিলিপাইনের ৫৪ লাখ এবং আফগানিস্তানের অভিবাসী রয়েছে ৫১ লাখ।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০১৯ সালে সবচেয়ে বেশি আন্তর্জাতিক অভিবাসীকে স্বাগত জানিয়েছে ইউরোপ (৮২ লাখ), দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে উত্তর আমেরিকা (৫৯ লাখ) এবং তৃতীয় স্থানে আছে পশ্চিম এশিয়া (৪৯ লাখ)।

এদিকে দেশভিত্তিতে বিশ্বের মোট অভিবাসীর অর্ধেকই রয়েছে দশটি দেশে। বিশ্বে সবচেয়ে বেশি অভিবাসী রয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে ( ৫ কোটি ১০ লাখ), যা বিশ্বের মোট অভিবাসীর ১৯ ভাগ। দ্বিতীয় স্থানে আছে জার্মানি ও সৌদিআরব (১ কোটি ৩০ লাখ), তৃতীয় স্থানে রয়েছে রাশিয়া (১ কোটি ২ লাখ), চতুর্থ যুক্তরাজ্য (১ কোটি), পঞ্চম সংযুক্ত আরব আমিরাত (৯০ লাখ), ষষ্ঠ স্থানে আছে ফ্রান্স, কানাডা ও অস্ট্রেলিয়া (৮ কোটি) এবং ইতালি আছে দশম স্থানে (৬ কোটি)।

১৮ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘের অর্থনৈতিক ও সামাজিক বিভাগ (ডিইএসএ) এর ‘দ্য ইন্টারন্যাশনাল মাইগ্রেন্ট স্টক-২০১৯’ প্রতিবেদনে এই তথ্যগুলো উঠে আসে। এই সমীক্ষায় বিশ্বজুড়ে বয়স, লিঙ্গ ও জাতিভেদে আন্তর্জাতিক অভিবাসীদের তালিকা প্রকাশ করা হয়। ডিইএসএ এর মহাসচিব লিও জেনমিন বলেন, ‘বিশ্বজুড়ে অভিবাসী ও অভিবাসনের গুরুত্ব এবং যে দেশ থেকে অভিবাসীরা এসেছে ও যে দেশে বসবাস করছে দুই দেশেরই সামগ্রীক উন্নয়নের স্বার্থে এই তথ্যগুলো অনেক গুরুত্বপূর্ণ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত