প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিএনপির প্রার্থী হওয়ার কারণে আমাকে ও আমার পরিবারকে টার্গেট করে মিথ্যাচার করা হচ্ছে, বললেন রিটা রহমান

শাহানুজ্জামান টিটু : রংপুর-৩ আসনের উপনির্বাচনে বিএনপির মনোনিত প্রার্থী রিটা রহমান বলেন, রাজনৈতিক প্রতিপক্ষরা আমার ও আমার পরিবারের বিরুদ্ধে মিথ্যা প্রচার করলেও আমার কোনো কষ্ট থাকতো না। কিন্তু যখন মিডিয়া আমার পরিবার বিশেষ করে জাদু মিয়া ও আমার স্বামী প্রায়াত লে. জেনারেল খায়রুজ্জামানকে নিয়ে বঙ্গবন্ধু হত্যার সঙ্গে জড়িয়ে খবর প্রকাশ করে তখন আর কী বলার থাকতে পারে? আমি বলতে চাই, আপনারা সত্য লিখতে না পারেন কিন্তু মিথ্যা লিখেন না। এই নির্বাচনের আগে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন করেছি কিন্তু তখন আমার ও আমার পরিবার নিয়ে এতো কথা হয়নি। কিন্তু যখনই আমি বিএনপিতে যোগ দিয়েছি তারপর থেকে এই অপপ্রচার শুরু হয়েছে। বুধবার এক সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বলেন।

সম্প্রতি তার দল পিপলস পার্টি বিলুপ্ত করে সদ্য বিএনপিতে যোগ দেন তিনি। রংপুর-৩ উপনির্বাচনে বিএনপির টিকেটে নির্বাচন করছেন তিনি। একাদশ সংসদ নির্বাচনে এই আসনে তিনি জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান প্রায়ত হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের বিরুদ্ধে নির্বাচন করে প্রায় ৫৫ হাজার ভোট পান। রংপুরের এক ঐতিহ্যবাহী রাজনৈতিক পরিবারে তার জন্ম। বাবা জাদু মিয়া সংর্স্পশে থেকে তিনি রাজনীতির শিক্ষা পেয়েছেন। তার স্বামী খায়রুজ্জামানকে বির্তকিত ভাবে উপস্থাপন করা হচ্ছে বলে অভিযোগ করেন রিটা রহমান। তিনি বলেন, শেখ মুজিবকে যখন হত্যা করা হয় তখনতো আমার স্বামী দেশে ছিলেন না। তিনি দেশে আসেন অক্টোবর মাসে তাহলে আমার স্বামী কিভাবে বঙ্গবন্ধু হত্যার সঙ্গে জড়িত হতে পারেন? তাহলে তিনি কিভাবে খুনি হন। আর আমি কিভাবে খুনির বউ হই?

নির্বাচনের প্রস্তুতি সর্ম্পকে রিটা রহমান বলেন, এখনো আনুষ্ঠানিক প্রচার শুরু হয়নি। তবে আমি ভোটারদের বাড়ি বাড়ি যাচ্ছি। তাদের অভূতপূর্ব সাড়া দেখছি। এখনো সরকারের কোনো বাঁধার সমুক্ষিণ হতে হয়নি। তবে আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ছাত্রলীগ সবসময় আমাকে ফলো করছে। আমি যেখানে যাচ্ছি তারা সেখানে যাচ্ছে।

আওয়ামী লীগ কিংবা জাতীয় পার্টির প্রার্থী নিয়ে তেমন ভাবনার কিছু নেই। তবে আমি আশাবাদী জয়ের ব্যাপারে। কারণ এরশাদের যে জনপ্রিয়তা ছিলো। এখন তার প্রতিনিধিত্ব করার মতো কোনো নেতা কেউ নেই। যদি তার ভাই কাদের প্রার্থী হতেন তাহলে একটা বিষয় ছিলো। এছাড়া এখানে সব সময়ই আওয়ামী বিরোধী সেন্টিমেন্ট কাজ করে। আমরা রংপুরবাসি চাই এখানে যারা আদি অধিবাসী তারা নেতৃত্বে ফিরে আসুক। এখানের মানুষ সব সময় প্রগতিশীল। যদি সরকার বা নির্বাচন কমিশন নিরপেক্ষ ভূমিকা পালন করেন তাহলে নির্বাচনে জনগণ আমার পক্ষে ধানের শীষের পক্ষে রায় দেবেন।

রিটা রহমান বলেন, রংপুর অনেক পিছিয়ে গেছে। রংপুরের যে ঐতিহ্য ছিলো তা এখন হারিয়ে গেছে। রংপুরের উন্নয়ন হয়নি। রাস্তাঘাটের উন্নয়ন হয়নি। যানজটের শহরে পরিণত হয়েছে। এখানে গ্যাস আসেনি। স্টেডিয়াম নেই। শ্যামসুন্দর খাল যা রংপুরের ঐতিহ্য তা ভরাট করা হয়েছে। আমি নির্বাচিত হতে পারলে সংসদে আমি রংপুরের উন্নয়নের জন্য কথা বলবো। সম্পাদনা : মুসবা

সর্বাধিক পঠিত