প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শিক্ষাকে টিনের বাক্সে বন্দি করে রাখা যায় না, রোহিঙ্গা তরুণীর ছাত্রত্ব স্থগিত প্রসঙ্গে নূর খান

মঈন মোশাররফ : কক্সবাজারের রোহিঙ্গা তরুণী রহিমা আক্তারের উচ্চশিক্ষা হুমকির মুখে। তার নাগরিকত্ব নিয়ে বিতর্ক ওঠায় কক্সবাজার ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি তার ছাত্রত্ব স্থগিত করেছে। রহিমা আক্তার কক্সবাজরের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কক্সবাজার ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির আইন বিভাগের দ্বিতীয় সেমিস্টারের শিক্ষার্থী ছিলেন। ডয়চে ভেলে

এ প্রসঙ্গে মানবাধিকার কর্মী এবং আইন ও সালিশ কেন্দ্রের সাবেক নির্বাহী পরিচালক নূর খান রোববার ডয়চে ভেলেকে বলেন, আমি এই সিদ্ধান্তের তীব্র প্রতিবাদ জানাই। শিক্ষা মানুষের জন্মগত অধিকার। রাষ্ট্রহীন নাগরিক হলেও তার শিক্ষার অধিকার কেড়ে নেয়া যায় না। আইন প্রয়োজনে পরিবর্তন করতে হবে, বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গারা এখানে স্বাভাবিক শিক্ষা ও উচ্চশিক্ষা নিতে পারেন।

রহিমার প্রসঙ্গে তিনি বলেন, সে যেভাবেই শিক্ষা গ্রহণ করুক না কেন, যে পরিচয়েই বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হোক না কেন, তার পড়াশোনাকে বাধাগ্রস্ত করা যাবে না। তাহলে তার প্রতি অন্যায় করা হবে। কারণ শিক্ষা গ্রহণে কোনো মানুষকে বাধা দেয়া যায় না।

রহিমা যাতে তার পড়াশুনা চালিয়ে যেতে পারে সেজন্য প্রয়োজনে বিশেষ ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান এই মানবাধিকার কর্মী।

এই পরিস্থিতি সৃষ্টির পেছনে সংবাদ মাধ্যমের ভূমিকার সমালোচনা করে তিনি বলেন, রোহিঙ্গাদের নিয়ে খবর পরিবেশনে সংবাদমাধ্যমের আরো দায়িত্বশীল হওয়া উচিত। কোনো সমস্যার কথা বলতে গিয়ে সে সমস্যার শিকার কাউকে বিপদে পড়ে এমন সংবাদ প্রচরে করার আগে ভাবা উচিত। সম্পাদনা : রাশিদ ও রাজু আহসান

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত