প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কাঠ ছেড়ে গ্যাসের যুগে বিজিবি

ডেস্ক রিপোর্ট : জ্বালানি হিসেবে কাঠের পরিবর্তে এবার এলপি গ্যাস ব্যবহারের অনুমতি পেল বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। গত ৩ সেপ্টেম্বর স্বাক্ষর করা এ সংক্রান্ত একটি আদেশ বৃহস্পতিবার জারি করেছে অর্থ মন্ত্রণালয়। জাগো নিউজ

অর্থ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মো. জাহিদুল ইসলাম স্বাক্ষরিত আদেশে বলা হয়, বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ বেতন ও ভাতাদি আদেশ, ২০১৫ এ ‘জ্বালানি কাঠভাতা’র পরিবর্তে ‘এলপি গ্যাস’ করা হলো। একই সঙ্গে ভাতার হার বাড়িয়ে ২৯৩ টাকা ৩৩ পয়সা করা হলো।

জানা গেছে, জ্বালানি কাঠভাতা বাবদ বিজিবির জন্য বর্তমানে বার্ষিক ১০ কোটি ৫৬ লাখ টাকা বরাদ্দ রয়েছে। এলপি গ্যাসের বরাদ্দ দেয়া হলে এ অর্থের পরিমাণ দাঁড়াবে ১৮ কোটি ২৩ লাখ টাকা। এ হিসাবে অতিরিক্ত প্রয়োজন হবে ৭ কোটি ৬৬ লাখ টাকা।

সংশ্লিষ্ট বিভাগের এক পর্যালোচনায় দেখা যায়, বর্তমানে বিজিবি সদস্যরা জনপ্রতি দৈনিক ৩ পাউন্ড অর্থাৎ ১ দশমিক ৩৬০ কেজি হিসাবে মাসে ৪০ দশমিক ৮০০ কেজি জ্বালানি কাঠের ভাতা পাচ্ছেন। সীমান্ত ফাঁড়িতে কর্মরত বিজিবি সদস্যদের জন্য মাসিক জ্বালানি কাঠভাতা ৫২ টাকা ছিল। পরবর্তীতে এ ভাতা বৃদ্ধি করে ১৭০ টাকা নির্ধারণ করা হয়।

জানা গেছে, পরীক্ষামূলকভাবে বিজিবির কিছুসংখ্যক বিওপিতে এলপি গ্যাসে রান্না করা হয়। সেখানে দেখা যায়, ১২ কেজি ওজনের একটি গ্যাস সিলিন্ডার (প্রতিটি সিলিন্ডারের মূল্য ৮৮০ টাকা) দিয়ে বিওপিতে কর্মরত ৩০ জন সদস্যের তিনদিনের রান্না করা যায়। ১২ কেজি ওজনের একটি গ্যাস সিলিন্ডারের মূল্য ৮৮০ টাকা হিসাবে ১ কেজি এলপি গ্যাসের মূল্য ৭৩ দশমিক ৩৩ টাকা। অতএব একজন সৈনিকের জন্য মাসিক চার কেজি এলপি গ্যাসের বরাদ্দ দেয়া হলে সৈনিকের জন্য মাসে ২৯৩ টাকা ৩৩ পয়সা বরাদ্দ করতে হবে।

বর্তমানে বিজিবির মোট সদস্য সংখ্যা ৫১ হাজার ৮৮২ জন। জনপ্রতি মাসিক জ্বালানি কাঠভাতা ১৭০ টাকা হিসাবে এ জনবলের জন্য জ্বালানি কাঠভাতা বাবদ বছরে বর্তমানে প্রয়োজন হচ্ছে ১০ কোটি ৫৬ লাখ ৫৭ হাজার ৭২০ টাকা। অপরদিকে এ জনবলের জন্য এলপি গ্যাস বরাদ্দ দেয়া হলে বছরে প্রয়োজন হবে ১৮ কোটি ২৩ লাখ ১৮ হাজার ৪০০ টাকা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ