প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার বন্ধ হওয়ায় বিদেশে কর্মী পাঠানোর হার কমেছে ১৫%

মোহাম্মদ মাসুদ: বিদেশে কর্মী পাঠানো প্রতিষ্ঠানগুলোতে নেই আগের মত ব্যস্ততা। পরিসংখ্যান বলছে এ বছর বিদেশে কর্মী পাঠানোর হার কমেছে। মাছরাঙ্গা টিভি

চলতি বছরের প্রথম ৭ মাসে বিদেশে কাজ করতে গেছেন ৩ লাখ ৮৪ হাজার কর্মী। যা গতবছরের এ সময়ের তুলনায় ৬৫ হাজার কম। এ কমার হার ১৫%। মূলত মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার বন্ধ হওয়ায় এ অবনতি বলে জানা গেছে। ঢাকায় শ্রম কাউন্সিলদের সম্মেলনে বিদেশে কর্মসংস্থানে আরো গতি ফেরাতে বিশেষ নির্দেশনা দিয়েছে প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়।

চলতি বছরে বিদেশগাম কর্র্মীদের অধিকাংশই গেছেন সৌদি আরবে। এর পরের অবস্থানে ওমান তারপর কাতার। এর বাইরে অন্যান্য দেশে কর্মী যাওয়ার হার খুবই কম।

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব আহমেদ মুনিরুছ সালেহীন বলেন, আমাদের চাওয়া কোয়ালিটি মাইগ্রেশন নিশ্চিত করতে, যে দেশেই দক্ষ লোক যাবে এবং বিকল্প নতুন বাজার অনুসন্ধান করা হচ্ছে।

মূলত বড় শ্রমবাজার হিসেবে পরিচিত মালয়োশিয়ার শ্রমবাজার বন্ধ থাকায় কমেছে কর্মী যাওয়া হার। বন্ধ রয়েছে দুবাইতেও সব ধরনের কর্মী নেয়া।

অতিরিক্ত সচিব আরো বলেন, গতানুগতিক বাজারগুলোর আন্তর্জাতিক কিছু কারণে বিশ্বব্যাপী মন্দা চলছে। আমাদের বাজারগুলোকে কিভাবে আরও সুসংহত করা যায় এ লক্ষ্যকে সামনে রেখেই লেবার কনফারেন্স আয়োজন করা হয়েছে।

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব রৌনক জাহান বলেন, মালয়োশিয়ার সরকারের চাওয়া পূর্বের যে ঘটনা ঘটেছে, সেটার যাতে পুনরাবৃত্তি না হয়। এজন্য মাইগ্রেশন গভানেন্সটাকে ঠিক করা হচ্ছে। শিগগিরই একটা সুখবর পাওয়ার আশা করছি।

এ প্রেক্ষাপটে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে কর্মরত বাংলাদেশের শ্রম কাউন্সিলদেরকে কর্মী পাঠাতে গতি আনার পাশাপাশি নতুন শ্রমবাজার সন্ধানের তাগিত দেয়া হয়েছে। সম্পাদনা : রাকা চৌধুরী

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত