প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ডেনিশ প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যকে ‘কুৎসিত’ বললেন ট্রাম্প

সালেহ্ বিপ্লব : গ্রীনল্যান্ড কিনতে চেয়ে ডেনমার্কের প্রত্যাখ্যানের মুখোমুখি হয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। আর এতেই তার মেজাজ পুরোপুরি চড়ে গেছে, কী বলতে কী বলছেন নিজেও বোধ হয় জানেন না। তাই অনায়াসেই ডেনিশ প্রধানমন্ত্রী মিট্টি ফ্রেডরিকসেনের বক্তব্যকে ‘কুৎসিত’ বলে ফেললেন তিনি। বিষয়টি প্রচণ্ড ক্ষুব্ধ করেছে ডেনমার্ককে।

বিবিসি জানায়, এই বিকেলে হোয়াইট হাউসে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। গ্রীনল্যান্ড কিনতে চেয়ে প্রত্যাখ্যাত হওয়ার কয়েক ঘন্টা পর এই প্রেস কনফারেন্সে ট্রাম্প স্পষ্টই বুঝিয়ে দেন, তিনি অপমানিত বোধ করছেন।

এর আগে ট্রাম্পের প্রস্তাবের ব্যাপারে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন ডেনিশ প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, সম্পদসমৃদ্ধ গ্রীনল্যান্ডের নেতা কিম কিয়েসেন পরিস্কারভাবেই ট্রাম্পের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছেন। মার্কিন প্রেসিডেন্টের ডেনমার্ক সফরকে দু’দেশের বন্ধুত্ব উদযাপনের সুযোগ হিসেবেই আমরা দেখছি। ট্রাম্প সফর বাতিল করলেও এতে করে দুদেশের সম্পর্কে কোনো প্রভাব পড়বে না, এ কথা উল্লেখ করে মিট্টি ফ্রেডরিকসেন বলেন, তার জন্য সফরের পথ সব সময়েই খোলা থাকবে। ডেনিশ প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, এই ঘটনায় দুদেশের সম্পর্কে কোনো প্রভাব পড়বে না। এর আগে ডেনিস প্রধানমন্ত্রী ট্রাম্পের গ্রিন্ল্যান্ড কেনার ইচ্ছেকে ‘আজব’ বলে অভিহিত করে বলেছিলেন, এধরনের ক্রয়ের ইচ্ছে হয়ত সিরিয়াস কিছু নয়।

ডেনমার্কের রাণী দ্বিতীয় মার্গারেট আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্পকে। ২ সেপ্টেম্বর ট্রাম্পের সফরে যাওয়ার কথা ছিলো। কিন্তু তার আগেই তিনি গ্রীনল্যান্ড কেনার প্রস্তাব দিয়ে পরিস্থিতি ঘোলা করে ফেলেন। ডেনমার্কের প্রত্যাখ্যানের পর তিনি সফর বাতিলের ঘোষণা দেন।

ডেনিশ প্রধানমন্ত্রী এ বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন করার কয়েক ঘণ্টা পর স্থানীয় সময় বুধবার বিকেলে হোয়াইট হাউসে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন ট্রাম্প। তিনি বলেন, ডেনিশ প্রধানমন্ত্রীর মনে রাখা উচিত ছিলো, তিনি আমার সঙ্গে নয়, যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে কথা বলছেন। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে এই ভাষায় কথা বলতে পারেন না, অন্তত আমি প্রেসিডেন্ট থাকাকালে।

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত