প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ইরানকে ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করতে দেয়া উচিত নয়, ব্রায়ান হুকের হাস্যকর দাবি!

রাশিদ রিয়াজ : আন্তর্জাতিক আইন ও পরমাণু সমঝোতা লঙ্ঘন করে মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ইরান অ্যাকশন গ্রুপের প্রধান ব্রায়ান হুক বলেছেন, ইরানে ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণের মাত্রা শূন্যের কোঠায় নামিয়ে আনতে হবে। পরমাণু সমঝোতায় ইরানকে ৩.৬৭ মাত্রায় ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করার অনুমতি দেয়া হয়েছে। ব্রায়ান হুক মঙ্গলবার ওয়াশিংটনে বলেন, মার্কিন সরকার মনে করে ইরানের ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করার অধিকার থাকা উচিত নয়। ইরান পরমাণু অস্ত্র তৈরির চেষ্টা করছে বলে যুক্তরাষ্ট্রের বহু পুরনো দাবির ফের তুলে ধরেন ব্রায়ান হুক।

এদিকে ইরানের পক্ষ থেকে ব্রায়ান হুকের এধরনের দাবিকে হাস্যকর অভিহিত করে বলা হয়েছে, পরমাণু সমঝোতা নিয়ে ইউরোপীয়রা তাদের প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন করতে পারলে তেহরানও অত্যন্ত দ্রুততার সঙ্গে নিজের পরমাণু তৎপরতাকে পরমাণু সমঝোতার আওতায় নিয়ে যাবে।

আন্তর্জাতিক আণবিক শক্তি সংস্থা বা আইএইএ পরমাণু সমঝোতা স্বাক্ষরিত হওয়ার পর গত চার বছরে ১৫টি ত্রৈমাসিক প্রতিবেদনে বলেছে যে, ইরান ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণের ক্ষেত্রে ওই সমঝোতায় বর্ণিত মাত্রা লঙ্ঘন করেনি। এ ছাড়া, হুক এমন সময় ইরানকে পরমাণু অস্ত্র তৈরির প্রচেষ্টা করার জন্য অভিযুক্ত করলেন যখন এই অস্ত্র তৈরির জন্য ৯০ বা তার চেয়ে বেশি মাত্রায় ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করতে হয়।

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও এর আগে একই ধরনের দাবি করে বলেছিলেন, ইরানকে কোনো পর্যায়েই ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণের অধিকার দেয়া উচিত নয়। ইরানের পরমাণু সমঝোতা থেকে আমেরিকার একতরফাভাবে বেরিয়ে যাওয়ার এক বছর পূর্তিতে গত ৮ মে ইরান এই সমঝোতারই ২৬ ও ৩৬ নম্বর ধারা মেনে এটির কয়েকটি ধারার বাস্তবায়ন স্থগিত রাখার কথা ঘোষণা করে। ইউরোপের পক্ষ থেকে ইরানকে এ সমঝোতার আওতায় আর্থিক সুবিধা দেয়ার প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন করতে না পারার পর তেহরান ওই ঘোষণা দেয়। ঘোষণা অনুযায়ী ইরান ৩.৬৭ মাত্রার চেয়ে বেশি মাত্রায় ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরার কাজ শুরু করে। পারসটুডে

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত