প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

উড্ডয়নের আগে বিমানের পাখায় ঝাঁপিয়ে পড়ল তরুণ (ভিডিও)

নিউজ ডেস্ক: উড্ডয়নের জন্য প্রস্তুতি নেয়ার সময় বিমানের পাখায় ঝাঁপিয়ে পড়ে এক তরুণ। এরপর কর্তৃপক্ষ তাকে আটক করে। নাইজেরিয়ার লাগোস বিমানবন্দরে এমন অদ্ভুত ঘটনা ঘটেছে। খবর সিএনএন।

শুক্রবার সকালে দেশটির লাগোসে মুরতালা মুহাম্মদ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এ ঘটনা ঘটে।

আজমান বিমান কর্তৃপক্ষ এক বিবৃতিতে জানায়, ওই তরুণের বিস্তারিত পরিচয় পাওয়া যায়নি। বিমানটি যখন রানওয়েতে ছিল তখন এ ঘটনা ঘটে। পরে পাইলট বিমানটি থামায়। তরুণটি বিমানের পাখায় ঘুরে বেড়াচ্ছিল। পরে বিমানের ইঞ্জিন বন্ধ করে দেয়া হয়।

বিমান কর্তৃপক্ষ জানায়, তরুণটি বিমানের পাখায় লাফ দেয় এবং পরবর্তীতে কেবিনের ঢোকার চেষ্টা করে। এ ঘটনাটি পাইলট রেডিওতে জানায়।

পুরো ঘটনা নজরে পড়ে এক ব্যক্তির। তিনি ভিডিও ধারণ করে তা ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেন। বিমানের পাখায় উঠে বসা ওই তরুণকে অনেক চেষ্টার পর নিচে নামাতে সক্ষম হন বিমানবন্দরের নিরাপত্তা রক্ষীরা। এ ঘটনার পর বিমানের যাত্রীদেরও নামিয়ে আনা হয়।

ইনস্টাগ্রামে এক যাত্রী জানান, বিমানটি তখন রানওয়ের দিকে যাচ্ছিল। কিছুক্ষণের মধ্যেই ওড়ার কথা। তখনই ওই তরুণ বিমানের দিকে দৌড়ে আসেন। তার হাতে ছিল একটি ব্যাগ। সেটি ছুড়ে ফেলে দেন। তার পরই লাফিয়ে বিমানের পাখায় উঠে বসেন।

View this post on Instagram

Guys this is an emmergency o. For 30 minutes we have been stuck at the runway at MMIA by an unidentified man who ran to the aircraft with a bag. Security has not showed up and everyone is panicking. I have so many questions to ask but right now I can't even breathe. Pls share this to all relevant authorities. Dear Nigeria!!!!! Update: He has finally been apprehended and we've all disembarked from the flight. FAAN authorities showed up 23minutes into the scene but were scared to approach him. Security eventually shows up after 37mins. ______ How it happened!! So our flight was taxing on the runway and about taking off when this man shows up running towards the moving aircraft from the bush. The pilot and a few passengers spotted him running towards the aircraft and the pilot immediately slowed down and quickly put off the engine. The guy approaches the plane with gloves and starts walking around and under the aircraft holding a bag which he dropped inside the engine. Thanks to the Pilot of the Azman Airline for quickly observing and taking swift action.. I still have a million and one questions to ask cos anything could have gone wrong! Nigeria will work perfectly someday. This I know. 🇳🇬🇳🇬🇳🇬

A post shared by Amb. Otto Orondaam (@otto_orondaam) on

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত