প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

২০ বছরের মধ্যে সব জেলায় রেল পথ

মাজহারুল ইসলাম : রেলকে দেশের জনসাধারণের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিতে এবং দেশের প্রতিটি জেলাকে রেল নেটওয়ার্কের আওতায় আনতে মহাপরিকল্পনা নিয়েছে সরকার। ২০ বছর মেয়াদি এ মহাপরিকল্পনার ৪টি পর্যায়ে ২৩৫টি প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজ চলছে। এতে ব্যয় হবে প্রায় আড়াই লাখ কোটি টাকা এবং দেশের প্রতি জেলা রেল নেটওয়ার্কের আওতায় আসবে। রেল মন্ত্রণালয় সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। ভোরেরকাগজ

সূত্র জানিয়েছে, বর্তমানে ২৪৮ কিলোমিটার মিটারগেজ লাইনকে ডুয়েলগেজ লাইনে রূপান্তর করা হয়েছে। ১ হাজার ১৩৫ কিলোমিটার রেললাইন পুনর্বাসন ও পুননির্মাণ করা হয়েছে। ৯১টি নতুন এবং ১৭৭টি রেল স্টেশন পুনর্বাসন ও পুননির্মান করা হয়। এ ছাড়া নতুন রেল সেতু হয়েছে ২৯৫টি এবং ৬৪৪টি পুনর্বাসন ও পুননির্মান করা হয়েছে। সংযোজিত হয়েছে ৪৬টি লোকোমোটিভ, ২৭০টি যাত্রীবাহী কোচ, ৫৪৬টি মালবাহী ওয়াগন ও ২টি রিলিফ ক্রেন। পুনর্বাসন হয়েছে ৪৩০টি যাত্রীবাহী কোচ ও ২৭৭টি মালবাহী ওয়াগন। চালু হয়েছে ১১৭টি নতুন ট্রেন এবং ৩৬টি ট্রেনের সার্ভিস ও রুট বাড়ানো হয়েছে।

জানা গেছে, দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে রেল উন্নয়নে প্রথম ধাপে ৫বছর মেয়াদি মাস্টারপ্লানে ২০১১-২০১৫ সাল পর্যন্ত প্রকল্প উন্নয়নে ১০৩টি প্রকল্প বাস্তবায়ন হয়েছে এবং দুয়েকটি চলমান রয়েছে। এ ছাড়া সরকারি অর্থায়নে ৩১টি প্রকল্প বাস্তবায়নের কাজ প্রায় শেষের পথে। বৈদেশিক অর্থায়নে বাস্তবায়িত হচ্ছে আরও ৩৪টি প্রকল্প। এসবের ব্যয় ধরা হয়েছে প্রায় ১ লাখ ২৭ হাজার ৯৭১ কোটি টাকা। দ্বিতীয় ধাপের প্রকল্প ২০১৬ সাল থেকে শুরু হয়ে ২০২০ সালের অর্থবছরে ৪৮টি প্রকল্প বাস্তবায়নের মাধ্যমে রেলের উন্নয়ন করা হবে।

সরকারি অর্থায়নে এর মধ্যে ২৫টি প্রকল্প প্রায় ৯হাজার ২০কোটি টাকা ব্যয়ে ও বৈদেশিক অর্থায়নে ২৩টি প্রকল্প ১৯হাজার ১১৩কোটি টাকায় বাস্তবায়িত হবে। এ ৪৮টি প্রকল্পে ব্যয় হবে প্রায় ২৮হাজার ১৩৩কোটি টাকা। তৃতীয় ধাপে মাস্টারপ্লান অনুযায়ী, ২০২১-২০২৫ অর্থবছরে ৩৭টি প্রকল্প বাস্তবায়ন করার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এই প্যাকেজে ৪৩হাজার ৯৭০কোটি টাকা ব্যয় হবে। চতুর্থ ধাপে মাস্টারপ্লান অনুযায়ী, ২০২৬-২০৩০ মধ্যে ৫বছরে আরও ৩৭টি প্রকল্প বাস্তবায়ন হবে। এসব প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে ৩৩হাজার ৮৭০কোটি টাকা ব্যয় হবে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত