প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

শ্রমিককে মারার নির্দেশ দিয়ে ফ্রান্সে বিচারের মুখে সৌদি যুবরাজের বোন

আব্দুর রাজ্জাক : সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমানের বোন হাসা বিনতে সালমানকে আগামী ৯ জুলাই ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসের একটি আদালতে বিচারের মুখোমুখি করা হবে বলে বুধবার একটি আইনী সূত্র জানায়। তার বিরুদ্ধে একজন শ্রমিককে মারার নির্দেশ দেয়ার অভিযোগ আনা হয়েছে। এনডিটিভি, ডেইলি সাবাহ

এএফপি জানায়, হাসা বিনতে সালমান ২০১৬ সালের সেপ্টেম্বরে প্যারিসে তার বাসায় সংস্কার কাজের জন্য একজন শ্রমিক নিয়োগ করেন। ওই শ্রমিক হাসা বিনতে সালমানের একটি ছবি তোলেন। ছবিটি গণমাধ্যমের কাছে বিক্রি করতে চাওয়ার অভিযোগ এনে তাকে মারার নির্দেশ দেন যুবরাজের বোন।

‘লা পয়েন্ট’ নামে একটি ম্যাগাজিন এক প্রতিবেদনে জানায়, হাসা বিনতে সালমান শ্রমিকের কা-ে ক্ষুব্ধ হয়ে তার দেহরক্ষীকে মারার নির্দেশ দেন। তিনি বলেন, ‘তাকে হত্যা করো, কুকুর একটা। তার বাঁচার অধিকার নেই।’

ওই শ্রমিক এক সাক্ষাৎকারে বলেন, তার হাত বাধা হয় এবং প্রায় ১ ঘণ্টা ধরে কিলঘুষি মারা হয়। পরে হাসা বিনতে সালমানের পায়ে ‘চুম্বন’ করতে শক্তি প্রয়োগ করা হয়। কাজ থেকে অব্যাহতি নেয়ার আগে তার যন্ত্রগুলোও বাজেয়াপ্ত করা হয়।’

এফপি জানায়, মারার পর ওই শ্রমিক মারাত্মকভাবে আহত হন। এবং পরবর্তী প্রায় ৮ দিন কাজ করতে পারেননি।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালের অক্টোবরেই হাসা বিনতে সালমানের দেহরক্ষীর বিরুদ্ধে সশস্ত্র সহিংসতা, চুরি, প্রাণনাশের হুমকি এবং ইচ্ছার বিরুদ্ধে আটকে রাখার অভিযোগ আনা হয়। তবে ২০১৭ সালে আন্তর্জাতিক গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হলে তাতে হাসা বিনতে সালমানের নাম না থাকায় তাকে বিচারের আওতায় আনা হয়নি। সম্পাদনা : রাশিদ রিয়াজ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত