প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

রাজুতে অবস্থানকারী ছাত্রলীগের সাথে ঢাবি উপাচার্যের ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময়

মুহাম্মদ ইলিয়াস হোসেন, ঢাবি : রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশেই ঈদুল ফিতর পালন করছেন ছাত্রলীগের পদবঞ্চিত ও প্রত্যাশিত পদ না পাওয়া নেতাকর্মীরা। তাদের সাথে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোঃ আখতারুজ্জামান। তিনি ও তার ছেলে ছাত্রলীগের সহ সম্পাদক আশিক খান বাসভবন থেকে রান্না করা সেমাই নিয়ে অবস্থানকারীদের আপ্যায়ন করানোর মাধ্যমে ঈদ আনন্দ ভাগাভাগি করেছেন বলে জানা গেছে।

উপাচার্য এই সময়ে বলেন, তোমাদে দাবি যৌক্তিক। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিতর্কিতদের বাদ দিয়ে পুনরায় কমিটি করতে বলেছিলেন- এটি আমি জেনেছি। আমি তোমাদের কষ্ট বুঝি। তোমরা আমার ছেলের মত। তোমাদের সাথে তাই ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করতে এসেছি।

ছাত্রলীগের সভাপতি সাধারণ সম্পাদকের মধ্যে কেউ যোগাযোগ করেছেন কিনা জানতে চাইলে অবস্থানকারীদের মধ্যে ছাত্রলীগের সাবেক মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক উপ সম্পাদক আল মামুন জানান, তারা তাদের গ্রামের বাড়িতে অনেক আনন্দে ঈদ উদযাপন করতে গেছেন। তারা নিজেদের কে সংগঠনের অভিভাবক মনে করেন না। যদি মনে করতেন তবে আভ্যন্তরীণ সমস্যা রেখে তারা ঈদ করতে পারতেন না।

তিনি আরো জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশে ফেরার পর আমরা আমরণ অনশনে যাব। রোজা থাকায় আমরা অনশন করিনি এতদিন।

প্রসঙ্গত, গত ১৩ মে ৩০১ সদস্যবিশিষ্ট ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণার পর বিক্ষোভ মিছিল ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে সংবাদ সম্মেলন করেন পদবঞ্চিত ও প্রত্যাশিত পদ না পাওয়া নেতাকর্মীরা। এসময়ে তাদের উপরে হামলা হয়। এই ঘটনায় তিন সদস্যবিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠিত হয় এবং ২০ মে পাঁচ জনকে বহিষ্কার করা হয়। পরে ১৮ মে রাতে সভাপতি সাধারণ সম্পাদকের কাছে ৩০১ সদস্যের মধ্যে বিতর্কিতদের তালিকাসহ হামলাকারীদের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দিতে গেলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রে কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে পদবঞ্চিতদের উপর আবার হামলার অভিযোগ এনে হামলার শিকার নেতারা রাজু ভাস্কর্যের সামনে অনশনে বসেন।

পরে আওয়ামীলীগের জ্যেষ্ঠ নেতাদের এবং সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকের দাবি মেনে নেয়ার আশ্বাসে ২২ ঘন্টা পর তারা অনশন ভাঙলেও ২৭ মে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধাঞ্জলি জানানোর ঘটনাকে কেন্দ্র ঐদিন ভোর থেকে ৫ জুন প্রতিবেদনটি লেখা পর্যন্ত রাজু ভাস্কর্যে অবস্থান করছেন তারা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত