প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সিএনজিতে গ্যাস সংযোগ বন্ধ করা নিয়ে আপত্তি নেই সিএনজি এসোসিয়েশনের

শাহীন চৌধুরী: সিএনজি আবাসিক ও বাণিজ্যিক-এ গ্যাস সংযোগ বন্ধ করা নিয়ে কোনও আপত্তি নেই সিএনজি ওনার্স এন্ড কনভার্সন এসোসিয়েশন নেতাদের। তারা মনে করেন, এর ফলে বর্তমানে চালু থাকা সিএনজি স্টেশনগুলোর ভালোই ব্যবসা হবে। আবাসিক, সিএনজি ও বাণিজ্যিকে নতুন করে আর কোনও গ্যাস সংযোগ দেবে না সরকার। গত ২১ মে জ্বালানি বিভাগ থেকে নতুন সংযোগ সংক্রান্ত এ আদেশ জারি করা হয়। ওই আদেশ ২৩ মে সব বিতরণ কোম্পানির দফতরে পৌঁছানো হয়।

সরকারের এই সিদ্ধান্তের প্রতিক্রিয়াি জানাতে গিয়ে এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক ফারহান মাহমুদ আমাদের অর্থনীতিকে এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, বিপুল পরিমাণ অর্থ ব্যয় করে এলএনজি আমদানি করে সস্তায় গ্যাস দেয়ার কোন মানেই হয়না। তিনি বলেন, জ্বালানি সেক্টরকে বাঁচাতে হলে সবচেয়ে আগে অবৈধ সংযোগ ও গ্যাস চুরি বন্ধ করতে হবে।

সিএনজিতে সংযোগ না দিলে নতুন গাড়ীর গ্যাসে রূপান্তর কি হবে এমন এক প্রশ্নের জাবাবে তিনি বলেন, নতুন গাড়ী গ্যাসে রূপান্তর এখনতো প্রায় বন্ধই রয়েছে। এই সিদান্তের ফলে আর নতুন করে কোন গাড়ী গ্যাসে রূপান্তর হবে না। তিনি বলেন, সিএনজির অপ্রতুলতার কারনে ইতোমধ্যেই এ নিয়ে গাড়ী চালকদের আগ্রহ কমে গেছে। আরেকদফা সিএনজির দাম বাড়ানো হলে সিএনজি চালিত গাড়ী আর তেল চালিত গাড়ীর খরচ প্রায় একই হয়ে যাবে।

প্রসঙ্গত, জ্বালনি বিভাগের ওই আদেশে শিল্প মালিকদের গ্যাস সংযোগ সহজ করতে প্রধানমন্ত্রীর বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজসম্পদ বিষয়ক উপদেষ্টার নেতৃত্বে গঠিত কমিটি বাতিল করে সরকার। একইসঙ্গে শিল্প মালিকদের গ্রিডের বিদ্যুতে অভ্যস্ত করতে ক্যাপটিভ সংযোগকে নিরুৎসাহিত করার কথাও বলা হয়।

সূত্র জানায়, দীর্ঘ চার বছর এই কমিটির মাধ্যমে শিল্পে গ্যাস সংযোগ নিয়ন্ত্রিত ছিল। এতে গ্যাস সংযোগ প্রক্রিয়া ধীর হওয়ায় নতুন শিল্পকারখানা চালু হয়েছে খুবই কম। এতে শিল্পায়ন ও বিনিয়োগ বাধাগ্রস্ত হচ্ছিল। অনেক শিল্প মালিকের আবেদন জমে গিয়েছিল। তাদের বিনিয়োগও আটকে গিয়েছিল। আদেশে বলা হয়, নতুন গ্যাস সংযোগের ক্ষেত্রে শিল্প, বিদ্যুৎ ও সার কারখানাকে অগ্রাধিকার দিতে হবে, নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহের সক্ষমতা বাড়া এবং ক্যাপটিভ পাওয়ারে উৎপাদন দক্ষতা কম থাকায় ক্যাপটিভ শ্রেণিতে নতুন গ্যাস সংযোগ দেওয়া নিরুৎনাহিত করতে হবে।

এ প্রসঙ্গে তিতাসের একজন কর্মকর্তা জানান, সরকার যা চাইবে আমরা সেভাবেই কাজ করবো।এর আগে থেকে সরকার আবাসিকে গ্যাস না দেওয়ার জন্য মৌখিক আদেশ দিয়েছিল। কিন্তু লিখিত কোনও আদেশ কখনও দেয়নি। এবারই প্রথম লিখিত আদেশ দেয়া হলো।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত