প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘ঈদে গার্মেন্টস মালিকরা ইউরোপে যায়, আর শ্রমিকদের বেতনের দাবিতে আন্দোলন করতে হয়’

আসিফ হাসান কাজলঃ গার্মেন্টস ট্রেড ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক জলি তালুকদার বলেছেন, একদিকে গার্মেন্টস মালিকরা ভোগ বিলাস করবে। অন্যদিকে মাসের পর মাস পরিশ্রম করেও শ্রমিকরা বেতন বোনাস থেকে বঞ্চিত হবে। ঈদ মানেই শ্রমিকের চোঁখের জল।

শুক্রবার (২৪ মে) সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে ২০ রমজানের মধ্যে মাসের ঈদ বোনাসসহ সকলের বকেয়া পরিশোধ করার দাবিতে বিক্ষোভ করেছে গার্মেন্টস ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্র। সাভার, আশুলিয়া, উত্তরা, গাজীপুরসহ বিভিন্ন এলাকার গার্মেন্টস শ্রমিকরা এসময় রাস্তার উপর বসে অবস্থান ও সড়কে মিছিল করে।

সাংগঠনিক সম্পাদক খাইরুল আমিন মিন্টু বলেন, আশুলিয়ার অন্তত ১০টি গার্মেন্টস কারখানা এখনো বেতন দেয়নাই। আজকের সমাবেশস্থলে এমনও শ্রমিক রয়েছেন যারা এখন পর্যন্ত ফেব্রুয়ারি মাসের বেতন পায়নি।

বিক্ষোভ সমাবেশে গার্মেন্টস ট্রেড ইউনিয়নের নেতারা বলেন, শ্রমিক নেতাদের ফোন ট্রাকিং করে পুলিশের ধরতে সময় লাগে না। কিন্তু গার্মেন্টস মালিক বেতন না দিয়ে গা ঢাকা দিলেও পুলিশ তাদের খুঁজে পায় না, যা আমাদের কাছে হাস্যকর। তারা অভিযোগ করে বলেন, ঈদে গার্মেন্টস মালিকরা শপিং করতে ইউরোপ, আমেরিকা, সিঙ্গাপুরে যায়, আর শ্রমিকদের বেতনের দাবিতে আন্দোলন করতে হয়।

এসময় ইউনিয়নের কেন্দ্রীয় নেতারা হুঁশিয়ারী দিয়ে বলেন, ঈদের আগে শ্রমিকের পাওনা পরিশোধ করা না হলে সারা দেশের শিল্পাঞ্চলে ধর্মঘট আহ্বান করা হবে। এছাড়াও বিজিএমইএ, বিকেএমইএ ও শ্রম মন্ত্রণালয় ঘেরাওসহ কঠোর আন্দোলনে যাবে গার্মেন্টস শ্রমিকরা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত