প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

সাগরে ৬৫ দিন মাছ শিকার বন্ধে দাদন ব্যবসায়ীরা অসুখী, জেলেরা নয়, বললেন মৎস্যও প্রাণী সম্পদ প্রতিমন্ত্রী

কেএম নাহিদ: গভীর সাগরে মাছ ধরা ৬৫ দিনের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছে সোমবার থেকে। এই সময়ে মাছের প্রজনন বৃদ্ধি পাবে বলে মনে করে মৎস্য ও প্রাণীসম্পদ প্রতিমন্ত্রী আশরাফ আলী খসরু। সোমবার বিবিসি সঙ্গে এক সাক্ষাতকারে মন্ত্রী বলেন, ২০১৫ সালে থেকে আমরা এই কার্যক্রম চালু করেছি। প্রথম দিকে ইঞ্জিনচালিত বড়ো নৌকার ওপরে এই নিষেধাজ্ঞা ছিলো। এখন আস্তে আস্তে ছোট ডিঙ্গি নৌকার ওপরেও নিষেধাঙ্গা আরোপ করা হবে। ৬৫ দিনের নিষেধাজ্ঞায় যারা দাদন দিয়েছে তাদের সমস্যা, সাধারণ জেলেদের কেনো সমস্যা নেই।

সাধারণ জেলেদের যাতে কেনো অসুবিধা না হয়, সেজন্য আমরা চাল দেবো। পরবর্তী বছর থেকে ছাগল, মুরগী, হাঁস দেবো, যাতে তাদের কেনো সমস্যা না হয়।

তিনি বলেন, এই সময়ে ইলিশ মাছ গভীর সমুদ্রে ডিম ছাড়ে। নিষেধাজ্ঞার কারণে ইলিশ মাছের সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে এবং আমরা অনেক ইলিশ মাছ পাবো। এই সময়ে কেউ যেনো অবৈধ ভাবে সাগরে মাছ নিধন করতে না পারে সেজন্য কোষ্ট গার্ড হেলিকাপ্টারে টহল দেবে। যাতে দেশের জেলেরাতো নয়ই বিদেশের জেলেরা আমাদের সমুদ্র সীমার ভেতর ঢুকে অবৈধভাবে মাছ শিকার করতে না পারে। সম্পাদনা: কায়কোবাদ মিলন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত