প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিশ্বকাপের আগে ইংল্যান্ডের কাছে হোয়াইটওয়াশ হলো পাকিস্তান

স্পোর্টস ডেস্ক: বিশ্বকাপের আগে নিজেদের শেষবারের মতো ঝালিয়ে নিতে স্বাগতিক ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজ খেলে পাকিস্তান। কিন্তু এই সিরিজটি মোটেও সুখকর হয়নি পাকিস্তানের জন্য। হাই স্কোরিং ম্যাচে ৪-০ তে ইংলিশদের কাছে হোয়াইওয়াশ হয় পাকিস্তান। যেটি বিশ্বকাপের আগে হতাশাজনক পারফরমেন্স সরফরাজ খানের দলের জন্য।

গতকাল রোববার সিরিজের শেষ ম্যাচ লিডসে মুখোমুখি হয় দু’দল। কিন্তু ক্রিস ওকসের কারণে ৫৪ রানে হেরে হোয়াইওয়াশ এড়াতে পারেনি পাকিস্তান।

এদিন টসে জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকেই স্বভাবসুলভ ভঙ্গিমায় খেলে ইংল্যান্ড। ৬৩ রান পর্যন্ত টিকেছে দলটির উদ্বোধনী জুটি। ওপেনার জেমস ভিন্সকে (৩৩) ফেরান শাহিন শাহ আফ্রিদি। তবুও রানের চাকা সচল থাকে ইংল্যান্ডের। ইনিংসের ১০ ওভারের একটু পরেই দলীয় শতক অর্জন করে তারা। এরপরে ৩২ রান করা জনি বেয়ারস্টো ফিরে যান। এরপর ১১৭ রানের বড় জুটি গড়েন জো রুট এবং অধিনায়ক ইয়ন মরগান। ৭৬ রান করে ফিরে যান মরগান। অপরদিকে ৮৪ রান করে থামেন রুট। এরপর জশ বাটলারের ৩৪, বেন স্টোকসের ২১ ও টম কারানের অপরাজিত ২৯ রানের সুবাদে বিশাল সংগ্রহ অর্জন করে ইংল্যান্ড। ৫০ ওভারে নয় উইকেট হারিয়ে ৩৫১ রানে থামে তারা। পাকিস্তানের হয়ে চার উইকেট নেন আফ্রিদি। তিনটি উইকেট নেন ইমাদ ওয়াসিম।

ইংল্যান্ডের ছুঁড়ে দেওয়া ৩৫২ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে ক্রিস ওকসের দুর্দান্ত বোলিংয়ের সামনে ৪৬ ওভার ৫ বলে ২৯৭ রানে অলআউট হয়ে যায় পাকিস্তান। মাত্র ছয়রানের মধ্যেই দুই ওপেনারসহ তিন ব্যাটসম্যানকে হারিয়েছে তারা। এরপর ১৪৬ রানের দারুণ এক জুটি গড়েন বাবর আজম এবং অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ। ৮০ রানের ইনিংস খেলে বিদায় নেন বাবর। সেঞ্চুরি বঞ্চিত হয়েছেন সরফরাজও (৯৭)। বাবর-সরফরাজ দুজনেই রানআউটের শিকার হন। এরপর লোয়ার অর্ডার চেষ্টা করলেও লাভ হয়নি। পাঁচ উইকেট নিয়েছেন ক্রিস ওকস। আদিল রশিদ নেন দুটি উইকেট।

উল্লেখ্য, ইংল্যান্ড এই নিয়ে টানা ১১ সিরিজ জয় পায়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত