প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

মহাত্মা গান্ধীকে ‘পাকিস্তানের জাতির পিতা’ বলায় বিজেপি মুখপাত্রকে দল থেকে বহিষ্কার

সান্দ্রা নন্দিনী : ভারতীয় জনতা পার্টি-বিজেপি’র মধ্যপ্রদেশের মুখপাত্র অনিল সৌমিত্রকে শুক্রবার দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। ফেসবুকে দেওয়া একটি পোস্টের জেরে তার বিরুদ্ধে এই সিদ্ধান্ত হয়। এনডিটিভি, হিন্দুস্তান টাইমস
বরখাস্ত হওয়ার কয়েকঘণ্টা আগে অনিল তার পোস্টে লেখেন, ‘মহাত্মা গান্ধী জাতির পিতা ছিলেন ঠিকই কিন্তু তিনি ছিলেন পাকিস্তানের জাতির পিতা। ভারতে তারমত কয়েক কোটি সন্তান রয়েছে। তারমধ্যে কয়েকজন যোগ্য আর কিছু অযোগ্য।’

পোস্ট দেওয়ার পরপরই তীব্র সমালোচনা শুরু হলে সাংবাদিকদের তিনি বলেন, ‘পরিচিত বা অপিরিচিত যে কারোরই ভারতের জাতির পিতা হওয়ার সম্মান থাকতে পারে। সেকারণে তিনি জাতির পিতা হতে পারেন কিন্তু তিনি পাকিস্তানের জাতির পিতা। ভারত মাতৃভূমির সন্তান হওয়ার গৌরব প্রত্যেকেরই আছে।’ যদিও এত সমালোচনার পরও অনিল তার পোস্টটি মুছে ফেলেননি।

অনিলের এই মন্তব্যের কিছুসময় পরেই বিজেপির কেন্দ্রীয় মুখপাত্র হিতেশ বাজপেয়ী তাকে বহিষ্কারের খবর নিশ্চিত করেন। হিতেশ জানান, সৌমিত্রকে দল থেকে বহিষ্কার করেছেন রাজ্য বিজেপির সভাপতি রাকেশ সিং। বহিষ্কারের কারণ জানতে চাইলে বিজেপি নেতা হিতেশ বলেন, ‘মহাত্মা গান্ধীর সঙ্গে দেশের জনগণের আবেগের সম্পর্ক রয়েছে। সেকারণে অনিলের মন্তব্যের কারণে আগামী ১৯ মে ভারতের সর্বশেষ ধাপের লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি’র ভোটে প্রভাব ফেলতে পারে। আর এজন্যই তাকে বহিষ্কার করা হয়েছে।’

এর আগে শুক্রবার এক টুইট বার্তায় বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ বলেন, ‘দলের আদর্শ মেনে মহাত্মা গান্ধীর সমালোচনা করেননি বিজেপি নেতারা। এ সংক্রান্ত বক্তব্যের মাধ্যমে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগের বিষয়ে ব্যাখ্যা দিতে সংশ্লিষ্ট নেতাদের ১০ দিনের সময় বেধে দেওয়া হয়েছে।’

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত