প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

ফরিদপুরে মাদ্রাসা শিক্ষককে মারধর!

হারুন-অর-রশীদ, ফরিদপুর প্রতিনিধি : ছাত্রকে পেটানোর অভিযোগে ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গায় এক মাদ্রাসা শিক্ষককে মারধরের অভিযোগ উঠেছে। শিক্ষকের দাবি, ছাত্রের মা বলার পর শাসন করা হয়। এতে চড়াও হয় ছাত্রের স্বজনরা। যদিও বিষয়টির ভিন্ন মন্তব্য মিলেছে ছাত্রের মায়ের কাছে।

দীর্ঘদিন থেকে ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গা উপজেলার জাটিগ্রামে শাহ আরজানিয়া হাফেজিয়া মাদ্রাসার সহকারি শিক্ষক ও স্থানীয় মসজিদের পেশ ইমাম ছিলেন আসলাম মোল্লা। ছাত্রকে শাসনের জেরে গত ১৪ মে হামলা শিকার হন তিনি।

আহত শিক্ষকের দাবি, মাদ্রাসার ছাত্র ওমর ফারুকের মা শিক্ষার পাশাপাশি শাষনের কথা বলেন। এর প্রেক্ষিতেই গত ১১ মে ফারুককে লাঠি দিয়ে পেটান ও থাপ্পড় দেন। বিষয়টি জানার পর, ১৪ মে ঐ ছাত্রের মামা গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী উপজেলার বাসিন্দা আরিফ সিকদারসহ কয়েকজন এসে শিক্ষক আসলামকে মারধর করেন। আহত অবস্থায় তিনি ভর্তি হন গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে।

যদিও আহত ছাত্রের পরিবারে দাবি, শিক্ষক আসলাম প্রায়ই ওই ছাত্রকে মারধর করতেন। ঘটনার বিষয়ে সুনির্দিষ্ট অভিযোগ পেলেই ব্যবস্থা নেয়ার কথা বলছে পুলিশ।

এদিকে, মাদ্রাসা শিক্ষক আসলামকে মারধরের সাথে জড়িতদের বিচার চেয়েছে স্থানীয়রা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত