প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিশ্বকাপে অংশ নিতে যাওয়া সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের গ্লাভস-কেডস উপহার দিলেন তামিম

নিজস্ব প্রতিবেদক: আগামী ৩০ এপ্রিল থেকে ইংল্যান্ডের মাটিতে শুরু হচ্ছে সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের নিয়ে ‘স্ট্রিট চাইল্ড বিশ্বকাপ’। সেই বিশ্বকাপে অংশ নিবে বাংলাদেশের আট শিশু। দেশ ছাড়ার আগে জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের সাথে দেখা করে গিয়েছে তারা। শিশুদের উৎসাহ দিতে তাদের গ্লাভস আর কেডস উপহার দিয়েছেন বাংলাদেশ জাতীয় দলের ওপেনার তামিম ইকবাল।

বড় ভাইদরে, তামিম-মুশফিকরাও দিন গুণছেন ইংল্যান্ডে অনুষ্ঠিত হওয়ার বিশ্বকাপের। শুরু করে দিয়েছেন অনুশীলন। আট শিশুর বিশ্বকাপ অবশ্য আরও কাছে। মিশনে যাওয়ার আগে বড় টাইগারদের সাথে দেখা করেছে ক্ষুদেরা। তাদের উৎসাহ দিয়েছে তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিম, রুবেল হোসেন আর মুস্তাফিজুর রহমানরা। তাদের সঙ্গে ছবিও তুলেছে শিশুরা। ঘুরে দেখেছে ক্রিকেটারদের ড্রেসিং রুম।

আসন্ন বিশ্বকাপের মঞ্চে লাল-সবুজের প্রতিনিধিত্ব করতে যেমন ঘাম ঝড়াচ্ছেন টাইগাররা তেমনি পথশিশুরাও করে যাচ্ছে অনুশীলন। ২৮ মার্চ থেকে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের অধীনে শুরু হয়েছিলো তাদের অনুশীলন। ৮ মে পর্যন্ত চলবে বিশ্বকাপ। এ বিশ্বকাপেও অংশ নিবে দশ দল।

বিশ্বকাপে খেলার জন্য বাংলাদেশের ৮ জন শিশু পাসপোর্ট হাতে পেয়েছে। এই ৮ জন সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের প্রতিনিধিরা হল- সানিয়া মির্জা, জেসমিন আক্তার, স্বপ্না আক্তার, আরজু রহমান, রাসেল ইসলাম রুমেল, আবুল কাশেম, রুবেল ও নিজাম হোসেন।

পথশিশুদের বিশ্বকাপে দেশকে প্রতিনিধিত্ব করতে যাওয়া ৮ শিশুই ছিল বাংলাদেশের লোকাল এডুকেশন অ্যান্ড ইকোনমিক ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশনের (লিডো) অধীনে। ক্রিকেটের স্বপ্নে বিভোর শিশুরা বোর্ডের তদারকিতে আসার আগে ছিল কেরানীগঞ্জের বছিলায়, লিডো পিস হোমে। পথশিশুদের সেবাদাতা অলাভজনক সংস্থাটির প্রতিষ্ঠাতা ও পরিচালক ফরহাদ হোসেন অভিভাবক হয়ে আগলে রেখেছিলেন শিশুদের।

বিশ্বকাপের মূল আসরের আগে স্ট্রিট চাইল্ড বিশ্বকাপ আয়োজনের মাধ্যমে পথশিশুদের নিয়ে সচেতনতা সৃষ্টি ও তাদের একত্র করে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট টুর্নামেন্টে খেলার সুযোগ করে দেওয়াই স্ট্রিট চাইল্ড ক্রিকেট বিশ্বকাপের লক্ষ্য।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত