প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ডিপিএলের শেষ ম্যাচেও জয় পায়নি মোহামেডান

নিজস্ব প্রতিবেদক: ঐতিয্যবাহী ক্রিকেট ক্লাব বলা হয় মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবকে। কিন্তু নামের সাথে সুবিচার করতে পারে না দলটি। চলমান ডিপিএলের প্রথম পর্বে শেষ ম্যাচ পর্যন্ত অপেক্ষা করে সুপার লিগ খেলার সুযোগ পায়। কিন্তু সুপার লিগেও একই অবস্থা হয় দলটির। প্রথম পর্বে ১১ ম্যাচের ছয়টিতে জয় পেলেও সুপার সিক্সে ৫ ম্যাচের মধ্যে মাত্র একটিতে জয় পায়। আজ মঙ্গলবার শেষ ম্যাচে প্রাইম ব্যাংক দোলেশ্বর স্পোর্টিং ক্লাবের বিপক্ষে ৩ রানে হেরে টুর্নামেন্টে চতুর্থ স্থানে থেকে ডিপিএল শেষ করে। অন্যদিকে প্রাইম দোলেশ্বর শেষ করেছে তৃতীয় স্থানে থেকে।

ফতুল্লায় টস হেরে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ২৭৪ রান সংগ্রহ করে ৬ উইকেট হারানো দোলেশ্বর। দলের পক্ষে অর্ধ-শতক হাঁকান তিন ব্যাটসম্যান। সর্বোচ্চ ৮৯ রান আসে ফরহাদ হোসেনের ব্যাট থেকে। ৭৬ বলের মোকাবেলায় ৭টি চার ও ২টি ছক্কায় এই ইনিংস সাজান তিনি। এছাড়া সৈকত আলী ৬৫, সাইফ হাসান ৫৫ ও মার্শাল আইয়ুব ৩৮ রান করেন। মোহামেডানের পক্ষে দুটি উইকেট শিকার করেন শফিউল ইসলাম। এছাড়া রাহাতুল ফেরদৌস ও সাকলাইন সজীব একটি করে উইকেট শিকার করেন।

জয়ের লক্ষ্যে খেলতে নেমে আব্দুর মজিদ ও ইরফান সুক্কুর ভালো শুরুর ইঙ্গিত দিলেও যথাক্রমে ২৫ ও ২৬ রান করে সাজঘরে ফেরেন দুজন। এরপর প্রতিরোধ গড়ে তোলেন মোহাম্মদ আশরাফুল। তবে অন্য প্রান্তে আশরাফুল যোগ্য সঙ্গী খুঁজে পাচ্ছিলেন না। রকিবুল হাসান ২২ ও তুষার ইমরান ১৫ রান করে বিদায় নেওয়ার পর রাহাতুল ফেরদৌস যথাসাধ্য চেষ্টা করেন। তবে আশরাফুল ৭৬ ও রাহাতুল ৩৭ রান করে আউট হয়ে গেলে আবারও চাপে পড়ে যায় মোহামেডান। তবে নিহাদুজ্জামান ঝড়ো ব্যাটিংয়ের মাধ্যমে জয় এনে দেওয়ার চেষ্টা করেন। ১৯ বলে ৩৫ করা লোয়ার অর্ডার ব্যাটসম্যান সফল হননি একটুর জন্য। নির্ধারিত ৫০ ওভার শেষে ৯ উইকেট হারিয়ে ২৭১ রানে ইনিংসটি থেমে যায়। দোলেশ্বরের পক্ষে তাইবুর রহমান তিনটি এবং ফরহাদ রেজা ও মাহমুদুল হাসান দুটি করে উইকেট শিকার করেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত